বিনোদন

দেহ ব্যবসায় আটক বলিউড অভিনেত্রী শ্বেতা

মধুচক্রে জড়িত অভিযোগে ‘মাকড়ি’ খ্যাত বলিউড অভিনেত্রী শ্বেতা প্রসাদকে হাতেনাতে গ্রেফতার করল হায়দরাবাদ পুলিশ। রোববার (৩ সেপ্টেম্বর) হায়দরাবাদের অভিজাত এলাকা বানজারা হিলসের ‘পার্ক হায়াত হোটেল’ থেকে বেস কয়েকজন প্রথমসারির ব্যবসায়ীর সাথে ধরা পড়েন তিনি।

সংবাদ সম্মেলনে শ্বেতা জানান, ‘পরিবারকে সহযোগিতা করতে অর্থ আয়ের জন্য আমার কাছে অন্য কোনও উপায় ছিল না।’ একটি সংবাদপত্রে প্রকাশিত সংবাদ অনুযায়ী তিনি আরও জানান, ‘কয়েকজন তাঁকে দেহ ব্যবসায় নামার ব্যাপারে উস্কানি দিয়েছেন। শুধু আমি একা নই, আরও অনেক অভিনেত্রীই এই ব্যবসায় জড়িত।’ শৈশবে রুপালি পর্দায় অভিনয় দিয়ে ক্যারিয়ার শুরু করা অভিনেত্রীর এই বক্তব্য যথেষ্ট চাঞ্চল্যকর।

মাত্র ১১ বছর বয়সেই হিন্দি ছবি ‘মাকরি’ তে প্রথম অভিনয় করেন তিনি। চুন্নি ও মুন্নির দৈত চরিত্রে অভিনয় করে জাতীয় পুরস্কার লাভ করেন। ২০০৫ সালে ‘ইকবাল’ ও ২০০৬ সালে ‘ডারনা জরুরি হ্যায়’ ছবির সুবাদে বলিউডের স্বীকৃতি পান।

এরপর তেলেগু ছবিতে ডাক পেয়ে হায়দরাবাদ পাড়ি দেন শ্বেতা। কিন্তু অভিনয় জীবনের অন্তরালে কবে যে তিনি দেহ বিপণনের দিকে ঝোঁকেন, তা নিয়ে পরিচিতরা সকলেই বিস্মিত।

উল্লেখ্য, এর আগেও শ্বেতা একই অভিযোগে গ্রেফতার হয়েছিলেন বেশ কবার।

আরও সংবাদ...

Back to top button