আর্কাইভ

গৌরনদীর শীর্ষ সন্ত্রাসী ও মাদক বিক্রেতা হিরা বেপারী গ্রেফতার

স্টাফ রিপোর্টার ॥  পুলিশের তালিকাভুক্ত শীর্ষ সন্ত্রাসী চাঁদাবাজীসহ একাধিক মামলার পলাতক আসামি ও মাদক ব্যবসায়ী হিরা বেপারীকে (২২) বৃহস্পতিবার রাতে পুলিশ গ্রেফতার করেছে। শুক্রবার গ্রেফতারকৃতকে আদালতের মাধ্যমে জেল হাজতে প্রেরন করা হয়েছে।

পুলিশ ও এলাকাবাসি সূত্রে জানা গেছে, পৌর যুবলীগের আহ্বায়ক কমিটির সদস্য লিটন বেপারীর বড় ভাই নুরুল ইসলাম বেপারীর পুত্র মাদক ব্যবসায়ী হিরা বেপারীসহ তার তিন সহদর দীর্ঘদিন ধরে মাদকদ্রব্যের ব্যবসা করে আসছিলো। এতে তার চাচা লিটন বাঁধা দেয়ায় বুধবার রাত ১২টার দিকে সন্ত্রাসী হিরাসহ ৩/৪ জনে লিটনকে রাম দা দিয়ে কুপিয়ে তার ডান হাতের তিনটি আঙ্গুল বিচ্ছিন্ন করে ফেলে। এ সময় লিটনের মাকে কুপিয়ে ও ভাই জামালকে পিটিয়ে জখম করা হয়। গুরুতর আহত লিটন বেপারীকে গুরুতর অবস্থায় প্রথমে গৌরনদী হাসপাতালে সেখান থেকে বরিশাল এবং পরবর্তীতে ঢাকা হাসপাতালে প্রেরন করা হয়।

খবর পেয়ে পুলিশ ঘটনাস্থলে পৌঁছে হিরা বেপারীর ঘরের পিছনে মাদকদ্রব্য রাখার একটি বাংকার আবিস্কার করে। ঘটনার পরপরই হিরা বেপারী ও তার সহদররা মজুত করা মাদকদ্রব্য অন্যত্র সরিয়ে নিয়ে গাঁ-ঢাকা দেয়। এ ঘটনায় লিটনের মেঝ ভাই নুরুল হক বাদি হয়ে গৌরনদী থানায় ছয়জনকে আসামি করে মামলা দায়ের করেন। বৃহস্পতিবার রাতে চাঁদশী এলাকা থেকে পুলিশ শীর্ষ সন্ত্রাসী হিরাকে গ্রেফতার করে।

গৌরনদী থানার অফিসার ইনচার্জ আবুল কালাম জানান, গ্রেফতারকৃত হিরা বেপারীর বিরুদ্ধে চাঁদাবাজি, সন্ত্রাসীসহ গৌরনদী থানায় চারটি মামলা রয়েছে। এছাড়া তার বিরুদ্ধে মাদক বিক্রিসহ নানা অপরাধ কর্মকান্ডের অভিযোগ রয়েছে।

তবে স্থানীয় একটি সূত্রে জানা গেছে, মাদক বিক্রির টাকার ভাগাভাগি নিয়ে লিটনের সাথে হিরার মতবিরোধ দেখা দেয়। এতে ক্ষিপ্ত হয়ে হিরা ও তার সহযোগীরা লিটনকে কুপিয়ে জখম করেছে। হিরা বেপারীর গ্রেফতারের সংবাদে এলাকাবাসীর মাঝে স্বত্তি ফিরে এসেছে।

আরও পড়ুন

আরও দেখুন...
Close
Back to top button
Translate »