আর্কাইভ

বহিরাগতদের হামলায় সাংস্কৃতিক অনুষ্ঠান পন্ড

মাকে আমি কেমন করে থাকিবো ভুলে” মা দূর্গাকে বিদায় জানিয়ে এভাবেই মন মাতানো ধর্মীয় গান গাইছিলেন স্থানীয় শিল্পী প্রবীর বিশ্বাস। আর এ সাংস্কৃতিক অনুষ্ঠান উপভোগ করছিলেন ওই এলাকার হিন্দু সম্প্রদায়ের সহস্রাধীক ভক্তরা। আয়োজন ছিলো স্থানীয় শিল্পীদের সমন্ময়ে একটানা মধ্যরাত পর্যন্ত চলবে এ অনুষ্ঠান। এরইমধ্যে আকস্কিক ভাবে অনুষ্ঠান স্থলে উপস্থিত স্থানীয় এক যুবকের ওপর হামলা চালায় বহিরাগত ৮/১০ জন বখাটে যুবকেরা। অবশেষে পুলিশের উপস্থিতি টের পেয়ে হামলাকারীরা সটকে পরে। পরবর্তী হামলার আশংকায় পুরো অনুষ্ঠানটি বন্ধ করে দেয় পূজা কমিটির নেতৃবৃন্দরা। ঘটনাটি ঘটেছে রবিবার রাতে বরিশালের আগৈলঝাড়া উপজেলার গৈলা ইউনিয়নের প্রত্যন্ত তালতারমাঠ সার্বজননী দূর্গা মন্দির আঙ্গিনায়।

মন্দির কমিটির সভাপতি ডাঃ শান্তি রঞ্জন হালদার জানান, গত শনিবার রাতে অনুষ্ঠান চলাকালে পাশ্ববর্তী ফুলশ্রী গ্রামের কতিপয় বখাটে যুবকেরা মন্দির আঙ্গিনায় উপস্থিত যুবতীদের নানাধরনের উত্যক্ত শুরু করে। এসময় স্থানীয় তাপস বিশ্বাস (২০) ওই বখাটে যুবকদের বাঁধা দেয়। এনিয়ে তাপসের সাথে বখাটেদের বাকবিতন্ডা হয়। ওই ঘটনার জেরধরে রবিবার রাত আটটার দিকে সাংস্কৃতিক অনুষ্ঠান চলাকালে ৪টি মোটরসাইকেলযোগে বখাটেরা মন্দিরের আঙ্গিনায় উপস্থিত তাপস বিশ্বাসের ওপর অর্তকিতভাবে হামলা চালায়। এ সময় মন্দির আঙ্গিনায় আগত দশনার্থীরা হামলার আতংকে দ্বিগবিদিক ছোঁটাছুটি শুরু করে। খবর পেয়ে তাৎক্ষনিক আগৈলঝাড়া থানার এএসআই কামরুজ্জামান সঙ্গীয় ফোর্স নিয়ে ঘটনাস্থলে পৌঁছলে হামলাকারীরা পালিয়ে যায়। এ ঘটনার পর পরবর্তী হামলার আশংকায় পূজা কমিটির নেতৃবৃন্দ পুরো অনুষ্ঠান বন্ধ করে দেন।

বহিরাগতদের হামলায় আহত তাপস বিশ্বাস জানান, পুলিশ ঘটনাস্থল থেকে ফুলশ্রী গ্রামের সিয়াম বেপারীর একটি মোটরসাইকেল উদ্ধার করলেও রহস্যজনক কারনে গতকাল সোমবার সকালে উদ্ধারকৃত মোটরসাইকেলটি ছেড়ে দেয়া হয়েছে। এএসআই কামরুজ্জামান মোটরসাইকেল উদ্ধারের অভিযোগ অস্বীকার করে বলেন, হামলার ঘটনায় থানায় কেউ লিখিত অভিযোগ দায়ের করেননি। বহিরাগতদের হামলায় সাংস্কৃতিক অনুষ্ঠান পন্ড হওয়ায় ওই এলাকার হিন্দু সম্প্রদায়ের মাঝে চাপা ক্ষোভ বিরাজ করছে।

আরও পড়ুন

Back to top button
Translate »