আর্কাইভ

গৌরনদীতে সংঘর্ষে মহিলাসহ ৫জন আহত ॥ ভাংচুরের অভিযোগ

পাল্টা হামলা ও সংঘর্ষের ঘটনা ঘটেছে। সংঘর্ষে উভয়পক্ষের মহিলাসহ ৫ জন আহত হয়েছে। গুরুতর আহতদের স্থানীয় হাসপাতালে ভর্তি করা হয়েছে। সংঘর্ষ চলাকালীন দুটি বসত ঘর ভাংচুরের অভিযোগ পাওয়া গেছে।

ওই গ্রামের কাঠ ব্যবসায়ী খলিল বেপারী গতকাল রবিবার প্রেসক্লাবে উপস্থিত হয়ে অভিযোগ করেন, তাদের বাড়ির পাশ্ববর্তী উত্তর পালরদী গ্রামের জনৈক ফজর আলী ঘরামীর স্ত্রী কল্পনা বেগমের সাথে পূর্ব শত্র“তার জেরধরে পাশ্ববর্তী জলিল মোল্লার স্ত্রী রানু বেগমের মধ্যে বাকবিতন্ডা বাঁধে। এ সময় তাদের ঝগড়া থামাতে গিয়ে আহত হয় খলিলের পুত্র রকিব বেপারী। এরজের ধরে উভয়ের পক্ষের মধ্যে হামলা ও পাল্টা হামলার ঘটনা ঘটে। এতে উভয়পক্ষের খলিল বেপারী, ফিরোজা বেগম, আক্কাস বেপারী, রিমা বেগম ও কল্পনা বেগম আহত হয়। গুরুতর আহত কল্পনা বেগমকে গৌরনদী হাসপাতালে ভর্তি করা হয়েছে। অন্যান্যদের প্রাথমিক চিকিৎসা দেয়া হয়েছে। সংঘর্ষ চলাকালীন খলিল বেপারী ও জলিল বেপারীর বসত ঘর ভাংচুরের অভিযোগ উঠেছে। অভিযোগ অস্বীকার করে কল্পনা বেগমের পুত্র কাওসার হোসেন বলেন, প্রতিপক্ষের লোকজনে তাদের নিজেদের ঘর নিজেরা ভাংচুর করে আমাদের ফাঁসাতে চাচ্ছেন। ঘটনার পর পরই গৌরনদী থানা পুলিশ ঘটনাস্থল পরিদর্শন করেছেন।

আরও পড়ুন

Back to top button
Translate »