আর্কাইভ

বরিশালে আজ থেকে শুরু হচ্ছে মেয়র নাট্য উৎসব

এই প্রথমবারের মত শুরু হচ্ছে মেয়র নাট্য উৎসব। ২০ ডিসেম্বর সোমবার থেকে আট দিনব্যাপী এই উৎসব শুরু হবে। চলবে ২৭ ডিসেম্বর পর্যন্ত। উৎসবে ঢাকা, বরিশাল ও ঝালকাঠীর ১৩ মঞ্চ নাট্য গ্র“প অংশ নেবে। নাট্য গ্র“প হলো- রাজধানীর আরন্যক, দৃষ্টিপাত থিয়েটার, নাট্যকেন্দ্র, প্রাঙ্গনে মোর, ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের নাট্য কলা বিভাগ ও থিয়েটার আট ইউনিট। বরিশালের শব্দাবলী, ব্রজমোহন থিয়েটার, নাট্যম, বরিশাল শিশু থিয়েটার, বরিশাল নাটক ও খেয়ালী গ্র“প থিয়েটার এবং ঝালকাঠীর প্রতীক নাট্য গোষ্ঠি। নগরীর অশ্বিনী কুমার হল ও শব্দাবলী ষ্টুডিও থিয়েটারে এই উৎসবের নাটক প্রদর্শিত হবে। ২০ ডিসেম্বর থেকে ২৭ ডিসেম্বর পর্যন্ত প্রতিদিন অশ্বিনী কুমার হলে সন্ধ্যা সোয়া ৬টায় এবং শব্দাবলী স্টুডিও থিয়েটারে হবে বিকেল ৫ টায় প্রদর্শন শুরু হবে। এই উৎসবের উদ্বোধন উপলক্ষে সোমবার অশ্বিনী কুমার হলে এক অনুষ্ঠানের আয়োজন করা হয়েছে। উৎসবের উদ্বোধন করবেন সিটি মেয়র এডভোকেট শওকত হোসেন হিরন। এতে প্রধান অতিথি হিসেবে উপস্থিত থাকবেন ইন্টারন্যাশনাল থিয়েটার ইনষ্টিটিউটের চেয়ারম্যান রামেন্দ্র মজুমদার। আরো উপস্থিত থাকবেন বাংলাদেশ গ্র“প থিয়েটার ফেডারেশনের চেয়ারম্যান লিয়াকত আলী, সেক্রেটারী ঝুনা চৌধুরীর।

আট দিনব্যাপী উৎসবের উদ্বোধনী দিনে রাজধানীর দৃষ্টিপাত থিয়েটার প্রদর্শন করবে নাগর আলীর কিচ্ছা। অশ্বিনী কুমার হলে সন্ধ্যা সোয়া ৬টায় এর প্রদর্শন শুরু হবে। ২১ ডিসেম্বর অশ্বিনী কুমার হলে বরিশাল নাটক প্রদর্শন করবে “যুদ্ধ এবং যুদ্ধ” ও একইদিনে শব্দাবলী স্টুডিও থিয়েটার বরিশাল শিশু থিয়েটারের পরিবেশনায় হবে “বোলতা”। ২২ ডিসেম্বর অশ্বিনী কুমার হলে ব্রজমোহন থিয়েটার করবে “এই দেশে এই বেশে” ও শব্দাবলীতে হবে রাজধানীর আরন্যকের পরিবেশনায় “হ্যামলেট”। ২৩ ডিসেম্বর অশ্বিনী কুমার হলে রাজধানীর নাট্যকেন্দ্রের “আরজ চরিতামৃত” ও শব্দাবলী স্টুডিও থিয়েটারে তাদের পরিবেশনায় “ফনা”। ২৪ ডিসেম্বর অশ্বিনী কুমার হলে শব্দাবলীর পরিবেশনায় “নীল ময়ুরের যৌবন” এবং শব্দাবলী থিয়েটারে ঝালকাঠীর প্রতীক নাট্য গোষ্ঠির “শহীদের শার্ট”।  ২৫ ডিসেম্বর অশ্বিনী কুমার হলে নাট্যমের “শাইলক এন্ড সিকোফ্যান্টস” এবং শব্দবলীতে বরিশাল নাটকের “প্রাগৈতিহাসিক”। ২৬ ডিসেম্বর অশ্বিনী কুমার হলে খেয়ালী গ্র“প থিয়েটারের “নদী মায়ের মতো” ও শব্দবলীতে রাজধানীর থিয়েটার আর্ট ইউনিটের “মগজ সমাচার”। উৎসবের শেষ দিনে রাজধানীর প্রাঙ্গনে মোর’র পরিবেশনায় অশ্বিনী কুমার হলে হবে “লোক নায়ক”  এবং ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের নাট্য কলা বিভাগের “সিদ্ধান্ত”।

মেয়র নাট্য উৎসবের আহবায়ক সৈয়দ দুলাল বলেন, বাংলাদেশে এই ধরনের নাট্য উৎসব প্রথম। বরিশালবাসী ও নাট্যকর্মিরা এর ইতিহাস হয়ে থাকবে। বরিশাল সিটি মেয়র এডভোকেট শওকত হোসেন হিরন বলেন, এই উৎসবের আয়োজন একটি মাইলস্টোন হয়ে থাকবে।

আরও পড়ুন

Back to top button
Translate »