আর্কাইভ

বোমা ফাঁটিয়ে আগৈলঝাড়ার ২ বাড়িতে ডাকাতি ॥ মহিলাসহ ১০ জন আহত

ডাকাতদল পরিবারের সবাইকে অস্ত্রের মুখে জিম্মি করে নগদ অর্থ, স্বর্ণালংকার মূল্যবান মালামালসহ প্রায় ৬ লক্ষাধিক টাকার মালামাল লুট করে নিয়েছে। ডাকাতদের নিক্ষিপ্ত বোমার আঘাতে ও হামলায় ডাকাতকবলিত পরিবারের মহিলাসহ এলাকার ১০ জন আহত হয়েছে। গুরুতর আহতদের গৌরনদী ও আগৈলঝাড়া হাসপাতালে ভর্তি করা হয়। গতকাল রবিবার সকালে পুলিশ ঘটনাস্থল ও হাসপাতাল পরিদর্শন করেছেন। এ ঘটনায় গতকাল রবিবার বিকেলে থানায় একটি মামলা দায়ের করা হয়েছে। 

ডাকাত কবলিত পরিবার ও পুলিশ সূত্রে জানা গেছে, শনিবার রাত দেড়টার দিকে রাংতা গ্রামের প্রবাসী মোসলেম আকন ও মোতালেব মোল্লার বিল্ডিংয়ের দরজা ভেঙ্গে ১৫/২০ জনের মুখোশপড়া ডাকাতদল ঘরে প্রবেশ করে। তারা অস্ত্রের মুখে পরিবারের সবাইকে জিম্মি করে  নগদ টাকা, স্বর্ণালংকার, মোবাইল ফোনসহ প্রায় ৬ লক্ষাধিক টাকার মূল্যবান মালামাল লুট করে নেয়। মোতালেব মোল্লার ঘরে ডাকাতিকালে পরিবারের লোকজন ডাকচিৎকার শুরু করলে ডাকাতরা ধারালো অস্ত্র দিয়ে তাদের পিটিয়ে ও কুপিয়ে আহত করে। এলাকাবাসি একত্রিত হয়ে ডাকাতদের ধাওয়া করলে আত্মরক্ষার্থে ডাকাতরা গ্রামবাসির ওপর বোমা নিক্ষেপ করে। ডাকাতদের নিক্ষেপ করা দুটি শক্তিশালী বোমার ও ডাকাতদের ধারালো অস্ত্রের আঘাতে গৃহকর্তা মোতালেব মোল্লা, তার স্ত্রী হোসনেয়ারা বেগম, ভাইয়ের স্ত্রী রাশিদা বেগম, এলাকাবাসি সোহেল মোল্লা, নয়ন মোল্লা, আনোয়ার ফকির, রিপন ঘরামী, হাবুল মোল্লা, ইব্রাহীম হোসেন, রাকিব মোল্লাসহ ১০ জন আহত হয়। গুরুতর আহত রিপন ঘরামীকে গৌরনদী, আনোয়ার হোসেন ও সোহেল মোল্লাকে আগৈলঝাড়া হাসপাতালে ভর্তি করা হয়েছে। এ ঘটনায় প্রবাসী মোতালেব মোল্লার ভাতিজা রাকিব মোল্লা বাদি হয়ে গতকাল রবিবার বিকেলে অজ্ঞাতনামা ২০/২৫ জনকে আসামি করে আগৈলঝাড়া থানায় একটি ডাকাতি মামলা দায়ের করেছেন।

আরও পড়ুন

মন্তব্য করুন

Back to top button
Translate »