আর্কাইভ

ডাকাতি মামলার আসামি কর্তৃক তিন লক্ষ টাকা চাঁদা দাবির অভিযোগ

সহযোগীরা বাদির নিকট আত্মীয়দের কাছে তিন লক্ষটাকা চাঁদা দাবি করেছে বলে অভিযোগ পাওয়া গেছে।

ডাকাতি মামলার বাদির নিকট আত্মীয় ও বরিশালের আগৈলঝাড়া উপজেলার রাজিহার ইউনিয়নের চেংগুটিয়া গ্রামের এচাহাক আলী সরদার অভিযোগ করেন, সম্প্রতি চেংগুটিয়া গ্রামে দুর্ধর্ষ ডাকাতি সংঘঠিত হয়। ওই ঘটনায় থানায় মামলা দায়ের করা হয়েছিলো। পুলিশ ডাকাতির মালামালসহ মামলার এজাহারভূক্ত আসামি মুন্না তালুকদার ও লিটন ঘরামীকে গ্রেফতার করে আদালতের মাধ্যমে কারাগারে প্রেরন করে। ওই মামলা থেকে জামিনে বেরিয়ে উল্লেখিত আসামিরা  তাদের সহযোগী শামীম তালুকদার ও শহিদ তালুকদারসহ অন্যান্যদের নিয়ে মামলার বাদির নিকট আত্মীয় এচাহাক আলী সরদারকে বিভিন্ন ধরনের ভয়ভীতিসহ মামলার খরচ বাবদ তার কাছে তিন লক্ষ টাকা চাঁদা দাবি করে।

উল্লেখিতরা গত শনিবার এচাহাক সরদারকে অপহরনের জন্য তার বাড়িতে হানা দেয়। এ সময় কৌশলে এচাহাক সরদার পালিয়ে যাওয়ার সময় সন্ত্রাসীরা তাকে ধাওয়া করে আটক করে বেদধম মারধর করে। বাড়ির মহিলারা হামলাকারীদের ফেরাতে গেলে সন্ত্রাসীরা তাদের অকথ্য ভাষায় গালিগালাজ করে। মুর্মুর্ষ অবস্থায় বাড়ির লোকজনে এচাহাক আলী সরদারকে গৌরনদী হাসপাতালে নেয়ার পথে হামলাকারীরা তাদের বাঁধা প্রদান করে। একপর্যায়ে এলাকাবাসির তোপের মুখে হামলাকারীরা পিছু হটলে এচাহাক সরদারকে নিয়ে গৌরনদী হাসপাতালে ভর্তি করা হয়। হাসপাতালের বেডে শষ্যাশয়ী এচাহাক আলী সরদার আরো অভিযোগ করে বলেন, বর্তমানে আমি পরিবার পরিজন নিয়ে হামলাকারী সন্ত্রাসীদের ভয়ে চরম নিরাপত্তাহীনতায় ভুগছি। এ ব্যাপারে আমি প্রসাশনের উর্ধ্বতন কর্মকর্তাদের আশু হস্তক্ষেপ কামনা করছি।

আরও পড়ুন

Back to top button
Translate »