আর্কাইভ

শাহজালাল বিশ্ববিদ্যালয়ের অডিটোরিয়াম উদ্বোধন করলেন অর্থমন্ত্রী

সার্বজনীন শাহজালাল বিশ্ববিদ্যালয়শিক্ষা নিশ্চিত করে তথ্য-প্রযক্তি নির্ভর শিক্ষা প্রতিষ্ঠান গড়তে সরকার পাবলিক প্রাইভেট পার্টনারশিপ(পিপিপি) মডেল নিয়ে কাজ করে যাচ্ছে। শাহজালাল বিজ্ঞান ও প্রযুক্তি বিশ্ববিদ্যালয় এই মডেলের আওতায় রয়েছে। এতে বিশ্ববিদ্যালয়টি ভৌত ও অবকাঠামোগত সুযোগ-সুবিধা পাবে। শনিবার বিশ্ববিদ্যালয়ের সেন্ট্রাল অডিটোরিয়াম ও সৈয়দ মুজতবা আলী ছাত্রহলের উদ্বোধনী অনুষ্ঠানে অর্থমন্ত্রী আবুল মাল আবদুল মুহিত এসব কথা বলেন। মন্ত্রী বলেন, বর্তমান উপাচার্যের হাত ধরে শাবিপ্রবি সবদিক থেকে পদ্ধতিগতভাবে এগিয়ে যাচ্ছে। দেশের মধ্যে এই বিশ্ববিদ্যালয়ের শিক্ষা গুণগতমান সর্বোচ্চ পর্যায়ে। প্রযুক্তির ব্যবহার উন্নয়নের শিকরে নিয়ে যায়। তথ্য-প্রযুক্তিখাত বর্তমান সরকারের নির্বাচনী ইশতেহারেও মূল উপজীব্য ছিল। তবে তরুণ প্রজন্মকেই প্রযুক্তি নির্ভর দেশ গড়তে তাদের দায়িত্ব পালন করতে হবে। এক্ষেত্রে তথ্য-প্রযু্িকতর পথিকৃত পরিণত হয়েছে শাবিপ্রবি। সভাপতির বক্তব্যে নামকরণ প্রসঙ্গে উপাচার্য প্রফেসর ড. মো. সালেহ উদ্দিন বলেন, বিশ্ববিদ্যালয়ে মুক্তিযুদ্ধের ভাস্কর্য হয়েছে। তাতে কেউ বাধা প্রদান করতে আসে নি। অথচ সিলেটের প্রগতীশীলদের একটি অংশ পূর্বে বিশ্ববিদ্যালয়ে নামকরণে বিরোধীতা করেছিল। আবাসিক হল, স্থাপনা ও ভবনগুলোর পূর্বে নামকরণকৃত সিদ্ধান্ত বাস্তবায়নের উপর তিনি জোর দেন। তিনি আরো বলেন, বিশ্ববিদ্যালয়ে সেশনজট শূন্যের কোঠায় এসেছে। শিক্ষক-শিক্ষার্থীরা দেশে ও বিদেশে সুনামের সাথে স্বাক্ষর রেখে চলেছে। উদ্বোধনী অনুষ্ঠানে শোক দিবস উপলক্ষে এক মিনিট নিরবতা পালন শেষে অতিথিদের ফুলেল শুভেচ্ছা জানানো হয়। পরে অনুষ্ঠানে অন্যান্যদের মধ্যে থেকে বক্তব্য রাখেন সিলেট-২ আসনের সাংসদ শফিকুর রহমান চৌধুরী, সংরক্ষিত মহিলা আসনের সাংসদ সৈয়দা জেবুন্নেছা হক, বিশ্ববিদ্যালয়ের প্রথম উপাচার্য প্রফেসর ড. সদরউদ্দিন আহমদ, কোষাধ্যক্ষ প্রফেসর ইলিয়াস উদ্দিন বিশ্বাস, আওয়ামী লীগের সাংগঠনিক সম্পাদক এড. সিরাজ উদ্দিন সিরাজ, সিলেট উপজেলা চেয়ারম্যান আশফাক আহমেদ ও রেজিস্ট্রার ইশফাকুল হোসেন।

আরও পড়ুন

Back to top button