আর্কাইভ

বরিশাল নগরজুড়ে ঈদ উপলক্ষে সাজসাজ রব

শুভব্রত দত্ত, বরিশালঃ বরিশাল নগরজুড়ে পবিত্র ঈদুল ফিতরকে স্বাগত জানানোর প্রস্ততি চলছে। ঈদের দিনটিকে স্মরনীয় করে রাখতে এ আয়োজনে মেতেছে নগরবাসী।

নগরীর মসজিদগুলোকে নতুনভাবে সুসজ্জিত করার কাজ চলছে। দ্রুত গতিতে চলছে নগরীর একমাত্র ঈদগাঁ ও রাস্তা-ঘাট পরিস্কার পরিছন্ন করার কাজ। ঈদ উপলক্ষে সকাল থেকে প্রতি বছরের ন্যায় এ বছরও প্লানেট ওয়াল্ড,বরিশাল কেন্দ্রীয় জেলখানা, এতিমখানাগুলো,সদর রোড,কাটপট্টি, চকবাজার, আলেকান্দা, কাউনিয়া, এলাকায় ঈদের আনন্দে মুখর থাকবে।

ঈদ উপলক্ষে বিসিসি মেয়র শওকত হোসেন হিরন,বরিশালের ৬টি আসনের সংসদ সদস্য ও অন্যান্য রাজনৈতিক দল ও সাংস্কৃতিক সংগঠন তাদের  শুভেচ্ছা জানাবেন । ঈদ উৎসবের আয়োজনে এখন ব্যস্ত সময় কাটছে শিল্প, সংস্কৃতি, স্বেচ্ছাসেবী, সামাজিক প্রতিষ্ঠান-সংগঠনের কর্মীরা। সবার লক্ষ্য আয়োজনে নতুনত্ব, ভিন্নতা আনা। তাদের চেষ্টা এক বছরের জীর্ণতা পেছনে ফেলে সৌন্দযর্, সংস্কৃতির ছোঁয়ায় নগরের বাসিন্দাদের আনন্দ দেওয়া।

ঈদের আয়োজন নিয়ে সবার মধ্যে যে উদ্দীপনা তা কিন্তু পথেঘাটে বের হলেই চোখে পড়ছে। বিশেষত শপিং মার্কেটগুলোর রকমারি আয়োজনই বলে দেয় ঈদ চলে এসেছে দোরগোড়ায়। বিসিসি’র ১৭নং ওয়ার্ড কাউন্সিলর আকতারুজ্জামান হিরু বলেন, আমার কাছে ঈদের আনন্দটা একটু আলাদা। এর সঙ্গে কেন যেন মা ও মাটির একান্ত সম্পর্ক রয়েছে। ঈদে কিছু কেনাকাটা করবো। অটো ড্রাইভার মালেক মিয়া কিছুটা আফসোস করেই বললেন, আজকাল কোনো আনন্দ অনুষ্ঠানে পারিবারিক বন্ধনগুলো আর তেমন চোখে পড়ে না। সময় পাল্টেছে, যুগ পাল্টেছে। এখন আর ঈদে আগের মতো আনন্দ নেই। তবে ঈদের দিন নামাজ পড়তে গেলে মনে হয় যেন আজ ধনী গরীব মিলে মিশে একাকার। বরিশাল মুক্তিযোদ্ধা সংসদের কমান্ডার কুতুব উদ্দিন বলেন, আরব বিশ্বে ঈদের দিনে প্রত্যেকের ভাল কিছু করে দেখানোর অঙ্গিকার করার রীতি বেশ প্রচলিত। ব্যক্তিগত সীমা ছাড়িয়ে এ বছর ঈদে দেশের জন্য যেন আমরা অঙ্গিকার করতে পারি।

আরও পড়ুন

আরও দেখুন...
Close
Back to top button