আর্কাইভ

এমন মন্তব্য প্রধানমন্ত্রী করতে পারেন না -বিরোধী দলীয় চীফ হুইপ

খোন্দকার কাওছার হোসেন ॥ সরকারের পক্ষে বেডরুম পাহারা দেয়া সম্ভব না প্রধানমন্ত্রীর এ বক্তব্যের সমালোচনা করে বিরোধী দলীয় চীফ হুইপ জয়নুল আবদিন ফারুক বলেন, জনগণকে নিরাপত্তা দেয়ার শপথ নেয়ার পর এমন মন্তব্য প্রধানমন্ত্রী করতে পারেন না। তিনি সংবিধানে হাত রেখে শপথ নিয়েছেন, দেশের ১৬ কোটি মানুষের নিরাপত্তা দেবেন, দেশের সীমান্ত রক্ষা করবেন। যারা জনগণের নিরাপত্তা দিতে প্রকাশ্যে অপারগতা প্রকাশ করছে, তাদের ক্ষমতায় থাকার অধিকার নেই। সরকারকে বলবো- অবিলম্বে নিরপেক্ষ সরকারের অধীন র্র্নিবাচন দিয়ে ক্ষমতা ছেড়ে দিন

শুক্রবার সকালে জাতীয় প্রেসক্লাবের সামনের রাস্তায় লেবার পার্টি আয়োজিত এক মানববন্ধন কর্মসূচিতে প্রধান অতিথির বক্তব্যে তিনি এসব কথা বলেন।

পিলখানা হত্যাকান্ডের স্মরণে ২৫ ফেব্রুয়ারিকে জাতীয় শোক দিবস ঘোষণার দাবিতে আয়োজিত এই মানববন্ধন কর্মসূচিতে সভাপতিত্ব করেন লেবার পার্টির চয়ারম্যান ডা. মোস্তাফিজুর রহমান ইরান। অন্যদের মধ্যে বক্তব্য রাখেন, বিএনপি চেয়ারপারসনের উপদেষ্টা মেজর জেনারেল (অব.) রুহুল আলম চৌধুরী, বিএনপির আন্তর্জাতিক বিষয়ক সম্পাদক নাজিম উদ্দিন আলম, লিবারেল ডেমোক্রেটিক পাটির যুগ্ম মহাসচিব শাহাদাত হোসেন সেলিম, ন্যাশনাল ডেমোক্রেটিক পার্টির সভাপতি খন্দকার  গোলাম মূর্তজা প্রমুখ।

ফারুক বলেন, হত্যা ঘটনার ১৩ দিন পরও হত্যাকারীরা গ্রেপ্তার হয়নি। প্রধানমন্ত্রী বলছেন, বেড রুমের নিরাপত্তা দেয়ার দায়িত্ব সরকারের নয়। আলামত নষ্ট করে ফেলা হয়েছে। এসব কথা-বার্তা থেকে মনে হচ্ছে- সাগর-রুনি হত্যাকা- সরকার ধামাচাপা দিচ্ছে। নানারকম বিভ্রান্তি ছড়িয়ে তারা তদন্তকে হিমাগারে নিয়ে গেছে।

তিনি বলেন, পিলখানা হত্যাকান্ড ঘটিয়ে কারা ধুতি পরে সীমান্ত পারি দিয়েছে তা জাতি আজো জানতে পারে নাই। সে সময় গঠিত তদন্ত রিপোর্টও প্রকাশ করা হয়নি।

ফারুক বলেন, সরকারের কাছে আর দাবি না করে এখন থেকে প্রতিরোধ গড়ে তুলতে হবে। জনতার সরকার প্রতিষ্ঠা করতে হবে। সেজন্য আগামী ১২ মার্চ আমাদের নেত্রী ঢাকা চলো কর্মসূচি দিয়েছেন। তাই ১২ মার্চের মহাসমাবেশকে সফল করে এই সরকারের পতন তরান্বিত করতে হবে।

আরও পড়ুন

মন্তব্য করুন

Back to top button
Translate »