আর্কাইভ

ঝালকাঠিতে আলতাফ চৌধুরী ও শাহজাহান ওমরের আগমন খবরে বিএনপির একাংশের ঝাঁড়ু মিছিল

ঝালকাঠি সংবাদদাতা ॥ কেন্দ্রীয় বিএনপির সহ-সভাপতি ও সাবেক স্বরাষ্ট্র মন্ত্রী আলতাফ হোসেন চৌধুরী ও সাবেক আইন প্রতিমন্ত্রী ব্যারিষ্টার এম শাহজাহান ওমর বীরোত্তমসহ কেন্দ্রীয় বিএনপির নেতৃবৃন্দের ঝালকাঠিতে আগমন সংবাদে স্থানীয় বিএনপির একটি বিচ্ছিন্ন গ্রুপ শহরে ঝাঁড়ু মিছিল করার চেষ্টা করে।

শনিবার সকাল ১১টার দিকে শহরের কামারপট্টি রোডস্থ বিএনপি কার্যালয়ের সামনে মিছিলটি বের করতে চাইলে পুলিশ এতে বাঁধা দেয়। ঝাঁড়ু মিছিলে বিএনপি নেতা এ্যাড. খান শহীদুল ইসলাম,এ্যাড. নাসিমুল ইসলাম, এ্যাড. আলাউদ্দিন খান, শাহ আলম গাজী, রুস্তুম আলী চাষী, সাবিহা আহমেদ, শওকত হোসেন খোকন, গাবখানের মনির, কীর্ত্তিপাশার শাকিল ও নেয়ামুলসহ কিছু ভাড়াটিয়া নারীদেরকে মিছিলের জন্য আনা হয়েছিল।

বিএনপির প্রতিনিধি সমাবেশে ঝালকাঠি বিএনপি’র চলমান গ্রুপিং সম্পর্কে কেন্দ্রীয় বিএনপি’র সহ-সভাপতি ও সাবেক স্বরাষ্ট্র মন্ত্রী আলতাফ হোসেন চৌধুরী তার বক্তব্যে হাতি ও ইদুঁরের একটি গল্পের উদাহরন টেনে বলেছেন শাহজাহান ওমরের কোন কমিটি লাগেনা। তিনি নিজেই একটি কমিটি। তবে শীঘ্রই মহাসচিব জেল থেকে বেরুলে কমিটি অনুমোদনের আশ্বাস দেন তিনি। বিএনপি’র নেতাকর্মীদের উদ্দেশ্যে বলেছেন কেন্দ্রীয় নেতৃবৃন্দদেরকে জেল থেকে বের করতে প্রয়োজনে বাড়ি বাড়ি আন্দোলন করুন। মহাজোট সরকারের রেল মন্ত্রী সুরঞ্জিত সেন গুপ্তকে উদ্দেশ্য করে বলেন লোকটা চোখ নাক খিচিয়ে শুধু বিএনপির চেয়ারপারসন বেগম খালেদা জিয়াকে কটাক্ষ করে কথা বলতেন। ভদ্রলোকের লোকজন যখন ৪ কোটি ৭০ লাখ টাকা নিয়ে ধরা খেলেন তখন দাঁত মুখ খিঁচে পাড়ায় মহল্লায় তার বিরুদ্ধে শ্লোগান ওঠে। এ সরকারকে চুরির অভিযোগে বিশ্ব ব্যাংক পদ্মা সেতু নির্মানের অর্থ দেয়া বন্ধ করে দিয়েছে। এ্যামনেষ্টি ইন্টারন্যাশনাল ও হিউম্যান রাইটস ওয়াচের প্রতিবেদনে দেশের স্বাধীনতা সার্বভৌমত্ব নস্যাৎ হতে যাচ্ছে বলে ইতমধ্যে শেখ হাসিনাকে সতর্ক করে দেয়া হয়েছে। শনিবার দুপুরে অতিথি কমিউনিটি সেন্টারে ঝালকাঠি জেলা বিএনপি আয়োজিত প্রতিনিধি সমাবেশে প্রধান অতিথির বক্তব্যে তিনি এ কথা বলেছেন।

বেগম জিয়ার রাজনৈতিক উপদেষ্টা, সাবেক প্রতিমন্ত্রী ও ঝালকাঠি জেলা বিএনপির সভাপতি ব্যারিষ্টার এম শাহজাহান ওমর বীরোত্তম এর সভাপতিত্বে অনান্যের মধ্যে বক্তৃতা করেন কেন্দ্রীয় বিএনপির সহ-সাংগঠনিক সম্পাদক এ্যাড. নজরুল ইসলাম খান রাজন, কেন্দ্রীয় বন ও পরিবেশ বিষয়ক সম্পাদক কর্নেল অব. শাহজাহান খান, পিরোজপুর জেলা বিএনপির সভাপতি গাজী নুরুজ্জামান বাবুল, কেন্দ্রীয় নেত্রী এ্যাড. বিলকিস আকতার জাহান শিরিন, জেলা বিএনপির সহ-সভাপতি মিঞা আহমেদ কিবরিয়া, মোস্তফা কামাল মন্টু, সাধারন সম্পাদক মনিরুল ইসলাম নুপুর, সাংগঠনকি সম্পাদক মেহেদী হাসান খান বাপ্পী, কেন্দ্রীয় ছাত্রদল সদস্য গোলাম আজম সৈকত, বিএনপি নেতা আজিজ খলিফা, সৈয়দ দেলোয়ার হোসেন, সরদার এনামুল হক এলিন, অনাদি দাস, কাঠালিয়া উপজেলার সভাপতি অধ্যাপক খায়রুল আলম খোকন প্রমুখ নেতৃবৃন্দ।

সমাবেশে কেন্দ্রীয় নেতৃবৃন্দ শীঘ্রই জেলা কমিটি অনুমোদনের প্রতিশ্রুতি দিয়ে মাঠ পর্যায়ে দলকে আরো সংঘঠিত করে আগামী ১১ জুনের পল্টন ময়দানের সমাবেশ সফল করার নির্দেশ দেন।

আরও পড়ুন

Back to top button
Translate »