আর্কাইভ

টরকী বাসষ্ট্যান্ডে চাঁদার দাবিতে হামলা ও সংঘর্ষে ১০ জন আহত

নিজস্ব সংবাদদাতা ॥ দু’লক্ষ টাকা চাঁদার দাবিতে আজ সোমবার দুপুর ও বিকেলে বরিশালের গৌরনদী উপজেলার টরকী বাসষ্ট্যান্ডে দু’দফা হামলা-পাল্টাহামলা ও সংঘর্ষে মহিলাসহ উভয়পক্ষের ১০ জন আহত হয়েছে। গুরুতর আহতদের হাসপাতালে ভর্তি করা হয়। এ ঘটনায় থানায় লিখিত অভিযোগ দেয়া হয়েছে।

জানা গেছে, পৌরসভার লাখেরাজ কসবা মহল্লার বাসিন্দা ও দুবাই প্রবাসী আল-আমিন সরদারের কাছে গত শনিবার দু’লক্ষ টাকা চাঁদা দাবি করে স্থানীয় কদম আলী, ইউনুস আলী, নাজমুল ও তার সহযোগীরা। আজ সোমবার দুপুরে লাখেরাজ কসবা সরদার বাড়ি জামে মসজিদ থেকে যোহরের নামাজ আদায় করে আল-আমিন বের হলে কদম আলী, ইউনুস আলী, নাজমুল তার পথরোধ করে। পূনরায় তারা দাবিকৃত চাঁদার টাকার জন্য চাপ প্রয়োগ করে। আল-আমিন তাদের দাবিকৃত চাঁদার টাকা দিতে অস্বীকার করায় চাঁদাবাজরা তাকে মারধর করে। এ ঘটনায় আল-আমিন, তার পিতা নুরুল হক সরদার ও মা মঞ্জিলা বেগম গৌরনদী থানা হাজির হয়ে অভিযোগ দায়ের করেন। থানা থেকে বের হয়ে বিকেল চারটায় দিকে বাড়ি ফেরার পথে তারা টরকী বাসষ্ট্যান্ডে পৌঁছলে চাঁদাবাজরা পূনরায় তাদের ওপর হামলা চালায়। এ খবর আল-আমিনের লোকজন মধ্যে ছড়িয়ে পড়লে তারাও পাল্টা হামলা চালায়। উভয় পক্ষের মধ্যে ধাওয়া-পাল্টা ধাওয়া ও সংঘর্ষের ঘটনা ঘটে। সংঘর্ষে আল-আমিন, তার পিতা নুরুল হক সরদার, মা মঞ্জিলা বেগম, প্রতিপক্ষ ইউনুস আলীসহ কমপক্ষে ১০ জন আহত হয়। আহতদের গৌরনদী হাসপাতালে ভর্তি করা হয়েছে।

এ ঘটনায় আল-আমিনের মা মঞ্জিলা বেগম বাদি হয়ে ওইদিন বিকেলে ছয় জনকে আসামি করে গৌরনদী থানায় লিখিত অভিযোগ দায়ের করেছেন। গৌরনদী থানার অফিসার ইনচার্জ (ওসি) আবুল কালাম অভিযোগ পাওয়া সত্যতা স্বীকার করে বলেন, তদন্তপূর্বক আইনগত ব্যবস্থা নেয়া হবে।

আরও পড়ুন

মন্তব্য করুন

Back to top button
Translate »