আর্কাইভ

ক্যান্সার রোগে আক্রান্ত ফিরোজ বাঁচতে চায়

টগ বগে যুবক ফিরোজ ফকির। গাজীপুরের একটি প্রাইভেট কোম্পানীতে কাজ করে স্ত্রী ও তিন সন্তানকে নিয়ে কোন একমতে চলছিল তাদের ৫ সদস্যর সংসার। সাত মাস পূর্বে হঠাৎ করে অসুস্থ্য হয়ে পরেন ফিরোজ। চিকিৎসায় তার ক্যান্সার রোগ সনাক্ত হয়। কর্তৃপক্ষ এ রোগের কথা জানতে পেরে তাকে (ফিরোজকে) চাকুরিচ্যুত করে। উপায়অন্তুর না পেয়ে ফিরোজ ফকির (৩৫) বাড়িতে ফিরে আসেন।
বরিশালের গৌরনদী উপজেলার কটকস্থল গ্রামের দিনমজুর সিদ্দিক ফকিরের পুত্র ফিরোজ ফকির (৩৫)। স্ত্রী রোকেয়া বেগম, কন্যা লামিয়া খানম (৯), সনিয়া খানম (৭) ও পুত্র ফাহমিদকে (২) নিয়ে ফিরোজের সংসার। ফিরোজের হতদরিদ্র পিতা সিদ্দিক ফকির তার শেষ সম্ভল জমি বিক্রি করে ফিরোজকে ঢাকার মহাখালী জাতীয় ক্যান্সার গভেষনা ইনিষ্টিটিউড হাসপাতালে ভর্তি করেন। ওই হাসপাতালের চিকিৎসক ডাঃ মোঃ শাহরিয়ার কবিরের তত্বাবধানে চিকিৎসাধীন অবস্থায় ঔষধ ক্রয়ের টাকার অভাবে অসুস্থ্য অবস্থায় ফিরোজ বাড়িতে ফিরে আসেন। বড়িতে কয়েকদিন যেতে না যেতেই ফিরোজ আবার অসুস্থ্য হয়ে পরেন। এসময় এলাকাবাসির সহযোগীতায় তাকে বরিশাল শের-ই-বাংলা মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে ভর্তি করা হয়। পরবর্তীতে টাকার অভাবে সেখান থেকে আবার বাড়িতে ফিরিয়ে আনা হয়।
ফিরোজের সহদর সবুজ ফকির জানান, টাকার অভাবে তার ভাইয়ের চিকিৎসা বন্ধ হয়ে গেছে। চিকিৎসকের পরামর্শ অনুযায়ী প্রাথমিক অবস্থায় তাকে (ফিরোজকে) ২৫ টি রেডিও থেরাপী ও ৬ টি ক্যামোথেরাপী দেয়া একান্ত প্রয়োজন। পরবর্তীতে অপারেশন করতে সব মিলিয়ে ১০ থেকে ১৫ লাখ টাকা প্রয়োজন। অসহায় পরিবারের পক্ষে এতটাকা যোগাড় করা অসম্ভব হয়ে পরেছে। অসহায় ফিরোজের স্ত্রী রোকেয়া বেগম তার অসুস্থ্য স্বামীকে বাঁচাতে সমাজের মহানুভব সমাজপতি, রাষ্ট্রপতি ও প্রধানমন্ত্রীসহ সবার কাছে হাত পেতেছেন। সাহায্য পাঠাবার ঠিকানা- মোঃ সবুজ ফকির, সঞ্চয়ী হিসাব নং-১০৫১০১২৮১৩৭০, ডাচ্ বাংলা ব্যাংক লিমিটেড, মতিঝিল শাখা, ঢাকা। যোগাযোগ-০১৯১৪-৯৩৮৯০৮।

আরও পড়ুন

Back to top button
Translate »