খেলাধুলা

সাসেক্সের ৩০ হাজার পাউন্ড আর টানছে না মুস্তাফিজকে!

গত জানুয়ারি-ফেব্রুয়ারিতে সংযুক্ত আরব আমিরাতে অনুষ্ঠিত পাকিস্তান সুপার লিগে (পিএসএল) করাচি কিংসে নাম লিখিয়েও খেলতে যাননি মুস্তাফিজুর রহমান। সেবার বাংলাদেশ ক্রিকেট বোর্ডের (বিসিবি) হস্তক্ষেপে সেই সিদ্ধান্ত নিয়েছিলেন বাঁ-হাতি এই পেসার।

এবার কাউন্টি ক্রিকেটে সাসেক্সের হয়ে খেলার ক্ষেত্রেও একইরকম সিদ্ধান্ত নিতে যাচ্ছেন তিনি। তবে, এবারের সিদ্ধান্তটা নিচ্ছেন নিজে থেকেই। ঢাকায় মুস্তাফিজের এক ঘনিষ্টজন সংবাদমাধ্যমকে বলে দিলেন, ‘ও তো ইংল্যান্ডেই যাবে না!’

ইংলিশ কাউন্টি দল সাসেক্স আইপিএল শেষেই পেতে যাচ্ছে একই ধরনের একটি দুঃসংবাদ! আনুষ্ঠানিকভাবে বলা হচ্ছে, ব্রিটিশ ভিসার জন্য ইন্ডিয়ান প্রিমিয়ার লিগ (আইপিএল) শেষে ঢাকায় ফিরবেন মুস্তাফিজ। যদিও বাংলাদেশিদের জন্য ব্রিটিশ ভিসা এখন ইস্যুই হয় ভারতে!

সানরাইজার্স হায়দ্রাবাদের হয়ে নয় ম্যাচে ১৩ উইকেট পাওয়া মুস্তাফিজ আইপিএল মৌসুম শেষ হলেই দেশে ফিরবেন মুস্তাফিজ। তার কারণটাও জানিয়েছেন তাঁর ঘনিষ্ঠজন, ‘মাঠের বাইরে ওর জীবনটা বড্ড একঘেয়ে। রুমেই থাকে। সাতক্ষীরার সাধারণ একটা ছেলের ওই পরিবেশ খুব ভালো লাগার কথা নয়। আত্মীয়স্বজন, বন্ধু আর নিজের চেনা পরিবেশটা খুব মিস করছে মুস্তাফিজ। তা ছাড়া ওর সবচেয়ে বড় গুণ হলো নিজের অবস্থাটা বোঝে।’

আর এরচেয়েও বড় ব্যাপার হল ক্যারিয়ারের শুরুতেই টানা ম্যাচ খেলে বাড়তি চাপ নিতে চান না মুস্তাফিজ, ‘ক্যারিয়ারের মাত্রই শুরু। তাই দীর্ঘ সময় খেলার জন্য সবরকমের সতর্কতা মেনে চলে। সবাই ওর বোলিংয়ের প্রশংসা করেন। ওর এই গুণটা আরো অভাবিত। ভাবা যায় এককথায় পিএসএলের ৫০ হাজার ডলার ছেড়ে দিয়েছে। কাউন্টির ৩০ হাজার পাউন্ডও ওকে টানছে না!’

চোটের আশঙ্কায় মুস্তাফিজকে কাউন্টি খেলতে দিতে রাজি নয় বিসিবিও। চার দিনের ম্যাচ হলে তবু কথা ছিল, কিন্তু সাসেক্সের হয়ে টি-টোয়েন্টি খেলে মুস্তাফিজের উপকারের চেয়ে অপকারের আশঙ্কাই বেশি তাদের মনে।

Tags

আরও সংবাদ...

Leave a Reply

Back to top button