আর্কাইভ

ঝুঁকিপূর্ণ ভবনে চলছে কৃত্তিম প্রজননের কাজ

প্রজনন কেন্দ্রের কাজ। ভবনটি এতই জরাজীর্ণ হয়ে পরেছে যা যেকোন সময়ে ধসে পরে প্রাণীহানির মতো ঘটনা ঘটতে পারে। মাঝে মধ্যে ভবনের নিচের অংশ থেকে প্লাষ্টার খসে পড়ে আগত লোকজন আহতও হচ্ছেন।

সংশ্লিষ্ট সূত্রে জানা গেছে, পাকিস্তান শাসনামলে আগৈলঝাড়া উপজেলার গৈলায় স্থাপিত হয় এ প্রজনন কেন্দ্র। এটি এতদাঞ্চলের সবচেয়ে পুরাতন প্রজনন কেন্দ্র হওয়ায় পূর্ব থেকেই এখানে লোকজনের আনাগোনা ছিল লক্ষনীয়। জনবহুল এলাকা ও যাতায়াতের সুবির্ধাথে গৌরনদী-পয়সারহাট সড়কের পাশ্ববর্তী গৈলাতে এ কেন্দ্রটি স্থাপন করা হয়েছিলো। কেন্দ্রটিতে দীর্ঘদিন থেকে মোঃ নুরু উদ্দিন মিয়া নামের একজন কর্মকর্তা দায়িত্ব পালন করছেন। নুরু উদ্দিন মিয়া বলেন, সামান্য বৃষ্টি হলেই ভবনের ফাঁটল দিয়ে বৃষ্টির পানি পরতে শুরু করে। এছাড়াও জীবনের ঝুঁকি নিয়ে এ কেন্দ্রে দায়িত্ব পালন করতে হচ্ছে। ফলে কৃত্তিম প্রজননের কাজে চরম বিঘ্ন ঘটছে বলেও তিনি উল্লেখ করেন। এ ব্যাপারে প্রাণী সম্পদ বিভাগের উর্ধ্বতন কর্মকর্তাদের কাছে একাধিকবার আবেদন করেও কোন সুফল হয়নি। ভবনটি ধসে পরে যেকোন সময় প্রাণহানীর মতো দুর্ঘটনার আশংকা রয়েছে।

আরও পড়ুন

আরও দেখুন...
Close
Back to top button