আর্কাইভ

গৌরনদীর আহছান উল্লাহ তার ক্ষেতের

আহছান উল্লাহ বলেন, প্রতিদিন এ ক্ষেত থেকে ৮ শ টাকা কেজি দরে ২ থেকে আড়াই কেজি স্ট্রবেরি ফল তোলা হয়। প্রথমবার বলে অন্যান্য এলাকার মতো অধিক উৎপাদন ও অধিক লাভ করতে না পারলেও আগামীতে এটি লাভজনক হবে বলে তিনি উল্লেখ করেন। ফলনের শুরুতেই কোল্ড ইনজুরির কারনে তার ক্ষেতের শতকরা প্রায় ৭০ ভাগ গাছ মারা যায়। এতে তিনি ব্যাপক ক্ষতির সম্মুখীন হয়েছেন।
নিজের মেধা ও মনকে কাজে লাগিয়ে স্থানীয় পর্যায়ে কৃষিকে আরো আধুনিক ও পরিবেশ সম্মত করতে একনিষ্ঠ ভাবে কাজ করে যাচ্ছেন কৃষক আহছান উল্লাহ। ইতোমধ্যে দেশের বিভিন্ন স্থানে তার ক্ষেতের স্ট্রবেরি ফল চাহিদা সৃষ্টি করতে সক্ষম হয়েছে। এখন প্রায়োজন এর বাজার সৃষ্টি করা। উপজেলা কৃষি কর্মকর্তা মোঃ আলমগীর বিশ্বাস জানান, গৌরনদীসহ পাশ্ববর্তী উপজেলায় প্রথম বারের মতো উত্তর পালরদী গ্রামে স্ট্রবেরি চাষ করা হয়েছে। স্ট্রবেরি চাষ ব্যয় বহুল বলেই অনেকেরই ইচ্ছে থাকা সত্বেও চাষ করা সম্ভব হচ্ছে না।

উপজেলা স্বাস্থ্য ও পরিবার পরিকল্পনা কর্মকর্তা ডাঃ রবীন্দ্রনাথ গাইন জানান, লিচু আকৃতির এ পুস্টিকর স্ট্রবেরি হৃদরোগের জন্য একটি বিশেষ উপকারি ফল। এছাড়াও এইডস রোগীদের পুষ্টিহীনতা দুর, জুস তৈরী, কসমেটিকের কাচা মাল হিসেবে ব্যবহার, জিবনী শক্তি সঞ্চার, ক্যান্সার প্রতিরোধসহ স্ট্রবেরির ফল বিভিন্ন রোগ প্রতিরোধে কার্যকরি ভূমিকা রাখে।

আরও পড়ুন

Back to top button
Translate »