আর্কাইভ

টরকীর চর বেঁদে পল্লীতে সংঘর্ষে ১৫ জন আহত ॥ ৩টি বাড়ি ও ১ টি নৌকা ভাংচুর

নিজস্ব সংবাদদাতাঃ অভ্যন্তরীণ কোন্দল ও আধিপত্য বিস্তারকে কেন্দ্র করে বুধবার সন্ধ্যায় বরিশালের গৌরনদী উপজেলার টরকীর চর এলাকার বেঁদে পল্লীতে বেঁদে সর্দার নান্নু সরদার ও স্বপন সরদার গ্র“পের মধ্যে হামলা-পাল্টা হামলা ও সংঘর্ষে উভয় পক্ষের ১৫ জন আহত হয়েছে। এ সময় বেঁদে পল্লীর ৩টি বাড়ি ও ১টি নৌকা ভাংচুরের ঘটনা ঘটেছে। গুরুতর আহতদের হাসপাতালে ভর্তি করা হয়। খবর পেয়ে থানা পুলিশ ঘটনাস্থলে পৌঁছে পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রনে আনেন।

প্রত্যক্ষদর্শী, আহত ও পুলিশ সূত্রে জানা গেছে, অভ্যন্তরীণ কোন্দল ও আধিপত্য বিস্তারকে কেন্দ্র করে ওই বেঁদে পল্লীতে সর্দার নান্নু সরদার ও অপর বেঁদে সর্দার স্বপন সরদারের মধ্যে বিরোধ চলে আসছিলো। এরজের ধরে বুধবার সন্ধ্যায় বেঁদে সর্দার নান্নু সরদারের পুত্র ডালু সরদারের নেতৃত্বে তার ৪/৫ সহযোগীরা অতর্কিত ভাবে হামলা চালিয়ে অপর বেঁদে সর্দার স্বপন সরদারের সমর্থক ইলিয়াসের নৌকা ভাংচুর করে। এ খবর ছড়িয়ে পরলে স্বপন সরদারের সর্মথকেরা জড়ো হয়ে নান্নু সরদারের সমর্থক বাচ্চু সরদারকে মারধর করে। এনিয়ে উভয় গ্রুপের সমর্থকরা সংঘর্ষে লিপ্ত হয়। হামলা ও সংঘর্ষে স্বপন গ্রুপের লিপি বেগম, রুবেল, আরিফ, মাফুজ, রনি, বায়জিদ, হাবলী বেগম ও নান্নু গ্রুপের ঠানু ঘরামী, মঈন সরদার, লুৎফন নেছা, পান্নু ঘরামী, ফয়সাল, হালিমা বেগম, ইক্তি সরদারসহ উভয় পক্ষের ১৫ জন আহত হয়। এ সময় বিধবা মরিয়ম বেগম, রুহুল আমিন সরদার ও ছবুর সরদারের বসত ঘর ভাংচুরের ঘটনা ঘটে।

আরও পড়ুন

মন্তব্য করুন

Back to top button
Translate »