আর্কাইভ

আগৈলঝাড়ায় হাজার জনগণের যাতায়াতে একমাত্রই ভরসা বাঁশের সাঁকো

আগৈলঝাড়া প্রতিনিধি ॥ আগৈলঝাড়ায় একটি ব্রীজের অভাবে হাজার হাজার জণগনের যাতায়াতে চরম দুর্ভোগের শিকার হচ্ছেন। এব্যাপারে এলজিইডিসহ সংশি¬ষ্ট কর্তৃপক্ষের কোন প্রকার মাথাব্যথা নেই। তারা উর্ধতন কর্মকর্তাদের অনুমোদিত একটি বাড়ির জন্য একটি ব্রীজ নির্মাণে ব্যস্ত রয়েছেন। স্থানীয় জনগণ বারবার এলজিইডি অফিসে ধর্না দিয়েও কোন কাজ হচ্ছেনা। জানা গেছে, উপজেলার রাজিহার ইউনিয়নের বড়বাশাইল গ্রামে উপজেলা পরিষদের রাস্তার সাথে পানি উন্নয়ন বোর্ডের খালের উপরে সংযোগস্থলে একটি বাঁশের সাঁকো দীর্ঘ ১০বছর যাবৎ ঝুঁকিপূর্ণ অবস্থায় রয়েছে। এই বাঁশের সাঁকোটি দিয়ে প্রতিদিন কয়েক শ’ পথচারীসহ স্কুল-কলেজের ছাত্রছাত্রীরা যাতায়াত করে। অনেক সময় পথচারীরা সাঁকো ভেঙ্গে নীচে পড়ে আহত হয়। ইউনিয়ন পরিষদ থেকে বাঁশের সাঁকো তৈরি করতে কোন সাহায্য সহযোগীতা করা হয়নি। এই স্থানে কোন ব্রীজ নির্মাণ না করে এলজিইডি বিভাগ উপজেলার বিভিন্নস্থানে তাদের উর্ধতন কর্মকর্তাদের সুপারিশে একটি বাড়ির জন্য একটি ব্রীজ নির্মাণ করছেন। এলজিইডি বিভাগে বড়বাশাইল গ্রামে স্থানীয় লোকজন লিখিত ও মৌখিকভাবে বারবার বলেও কোন কাজে হচ্ছেনা। পানি উন্নয়ন বোর্ডের সড়ক নির্মানের পূর্বে উপজেলা সদর থেকে উত্তর অঞ্চলের লোকজনের একমাত্র যাতায়াত পথ ছিল উপজেলা পরিষদের টিএন্ডটি পাশ দিয়ে যে সড়কটি বড়বাশাইলে সংযুক্ত হয়েছে। এসড়কটির বিভিন্নস্থানে ব্রীজ নির্মাণ হলেও একমাত্র পানি উন্নয়ন বোর্ডের সংযোগস্থলে খালের উপর বড়বাশাইল গ্রামের ব্রীজটি নির্মাণ করা হয়নি। এব্যাপারে উপজেলা প্রকৌশলী সাংবাদিকদের জানান, ওই স্থানসহ উপজেলা বিভিন্নস্থানে ১০/১২টি স্থানে ব্রীজের প্রয়োজনীয়তার কথা উল্লেখ করে ঢাকা অফিসে কাগজপত্র প্রেরণ করা হয়েছে।

আরও পড়ুন

Back to top button
Translate »