আর্কাইভ

যেমন কাটছে ঝালকাঠির সাবেক ২ এমপির বর্তমান দিনকাল

মামুনুর রশীদ নোমানী, বরিশাল ॥ ঝালকাঠি জেলায় ৪টি উপজেলা। এ জেলায় রাজাপুর ও কাঠালিয়া উপজেলা নিয়ে একটি আসন এবং ঝালকাঠি সদর ও নলছিটি নিয়ে অপর আসনটি। স্বাধীনতার পর থেকে এ আসন দুটি বিএনপির ঘাটি হিসাবে পরিচিত ছিল। জেলার ২ টি আসনে সাবেক এমপিদের মধ্যে রয়েছেন ব্যরিস্টার শাহজাহান ওমর বীরউত্তম এবং ইসরাত সুলতানা ইলেন ভূট্টো। স্বাধীনতার পর থেকে শহজাহন ওমর ৩ বার বিএনপি দলীয় ব্যানারে নির্বাচিত হয়েছেন। গত ওয়ান ইলেভেনের পর এ নেতা সাময়িক আত্মগোপন থাকায় ব্যাপক আলোচিত ও সমালোচিত হয়েছেন। পরবর্তীতে এ আসন থেকে আওয়ামীলীগের প্রার্থী বিএইচ হারুন এমপি নির্বাচীত হন। মূক্তিযুদ্ধের সময় নবম সেক্টরের সাবসেক্টর কমান্ডার শাহজাহান ওমর বীরউত্তম বর্তমানে বিএনপির চেয়ারপার্সন বেগম খালেদা জিয়ার অন্যতম উপদেষ্টা এবং জেলা বিএনপির সভাপতির দায়িত্ব পালন করছেন। অন্য দিকে ঝালকাঠি-২ (ঝালকাঠি-নলছিটি) আসনের সাবেক এমপি জেলা বিএনপির সাবেক সাধারণ সম্পাদক ইসরাত সুলতানা ইলেন ভূট্টোর রাজনীতিতে চলছে রেড সিগনাল। স্বামী মরহুম জুলফিকার আলী ভূট্টো ছিলেন জাতীয় পার্টি থেকে নির্বাচিত সংসদ সদস্য। তিনি আকস্মিক মৃত্যুবরন করায় তার জনপ্রিয়তার এবং বিএনপির ইমেজ নিয়ে ২০০১ সালে ঐ আসন থেকে আওয়ামীলীগের হেবি ওয়েট নেতা আমির হোসেন আমুকে পরাজিত করে এমপি নির্বাচিত হন। ৯ম জাতীয় সংসদ নির্বাচনে বিএনপির টিকেট নিয়ে নির্বাচন করলেও আমুর সাথে হারেন। হেরে গিয়ে এলাকা ছেড়ে চলে যাওয়ায় আজ পর্যন্ত এলাকায় আসেননি এমনকি কোন দুর্যোগ কিংবা দলীয় কর্মসুচীতেও দেখা যায়নি তাকে। যার কারনে এলাকবাসী এবং দলীয় নেতা কর্মীদের থেকে তিনি বিচ্ছিন্ন রয়েছেন। পাশাপাশি জেলা বিএনপির আহবায়ক কমিটিতেও তার স্থান হয়নি। সম্প্রতি গোপনে এলাকায় একটি মাইক্রোবাসে আসলে স্থানীয়দের তোপের মুখে পড়ে একপ্রকার লাঞ্চিত হয়ে এলাকা ত্যাগ করে চলে যান তিনি। বর্তমানে তিনি সংস্কার বাদী এবং চ্যালেঞ্জর মুখোমূখি রয়েছেন। সাবেক এমপি ইলেন ভূট্ট এখন দারুন ইমেজ সংকটে রয়েছেন, তার রাজনীতিতে জ্বলছে লালবাতি।

ঝালকাঠি-২ (রাজাপুর-কাঠালিয়া) আসনের সাবেক এমপি, সাবেক আইনপ্রতিমন্ত্রী ও মেজর (অঃ) ব্যারিস্টার শাহজাহান ওমর বীর উত্তম এর কাছে কেমন আছেন জানতে চাইলে তিনি জানান- ভালই আছি। দেশের অবস্থা বড় বেহাল তা অল্প সময়ের ব্যাবধানে ভাল হয়ে যাবে। এক সময়ের হেভিওয়েট এবং ব্যাপক জনপ্রিয় এ নেতা বর্তমানে বিরোধী দলে অবস্থান করায় স্বাভাবিক ভাবে নেতা কর্মীরা ও তার কাছে ভিড়ছেনা। তিনি এ প্রতিনিধিকে বলেন-ঝালকাঠির সর্বস্তরের লোকজন নিয়ে আগামি জাতীয় সংসদ নির্বাচনে ২টি আসনে আরো বেশী ভোট পেয়ে জয়ী হয়ে ঝালকাঠি বিএপির দুর্ঘ প্রমানিত করে দেশনেত্রী বেগম খলেদা জিয়ার হাতকে শক্তি শালি করব।

আরও পড়ুন

মন্তব্য করুন

Back to top button
Translate »