আর্কাইভ

ইন্টারনেট শক্তিতে পৃথিবী জয় করার অঙ্গীকার – গৌরনদীতে জমকালো আয়োজনের মধ্যদিয়ে ইন্টারনেট উৎসব সম্পন্ন

ষ্টাফ রিপোর্টার ॥ ইন্টারনেট তথা তথ্যপ্রযুক্তিকে কাজে লাগিয়ে নিজের উন্নয়ন ও দেশের সমৃদ্ধি অর্জনের অঙ্গীকার করল গৌরনদী উপজেলার ৩ কলেজ ও  ১১ টি মাধ্যমিক বিদ্যালয়ের ছাত্রছাত্রীরা। গৌরনদী পাইলট মাধ্যমিক বিদ্যালয় মাঠে আজ রোববার গ্রামীণফোন-প্রথম আলো ইন্টারনেট উৎসবে যোগ দিয়ে এ প্রত্যয় ব্যক্ত করে শিক্ষার্থীরা। সকাল ৯-৩০মিনিটে জাতীয় সংগীত পরিবেশনের মধ্য দিয়ে জাতীয় পতাকা উত্তোলন করেন গৌরনদী পাইলট মাধ্যমিক বিদ্যালয়ের প্রধান শিক্ষক মোঃ অলিউল্লাহ। পরে তিনি শিক্ষার্থীদের তথ্যপ্রযুক্তির ক্ষেত্রে এগিয়ে চলার দৃপ্ত শপথ বাক্য পাঠ করান।ইন্টারনেট শক্তিতে পৃথিবী জয় করার অঙ্গীকার - গৌরনদীতে জমকালো আয়োজনের মধ্যদিয়ে ইন্টারনেট উৎসব সম্পন্ন উদ্বোধনী বক্তব্যে তিনি বলেন, গ্রামীণফোনের সহযোগীতায় আমাদের সবার প্রিয় প্রথম আলো ব্যতিক্রমধর্মী এই উৎসবের আয়োজন করে সবার মন জয় করেছে। ইন্টারনেট শিক্ষায় যেই দেশ যত দক্ষ সেই দেশ তত উন্নত। এ সময় সামনে বসা শিক্ষার্থী হাত তুলে ইন্টারনেট শিক্ষায় আলোকিত হওয়ার  দীপ্ত অঙ্গীকার ব্যাক্ত করেন।

গ্রামীণফোন বরিশাল অঞ্চলের আঞ্চলিক ব্যবস্থাপক সুভাষ চন্দ্র লুথ তার বক্তব্যে বলেন, ইন্টারনেট জ্ঞান ও দক্ষতা ছাড়া আমরা এগুতে পারবো না। আমাদের দেশকে এগিয়ে নিতে এ জ্ঞান অর্জন করতে হবে। প্রথম আলোর পক্ষে বক্তব্য রাখেন প্রথম আলোর গৌরনদী প্রতিনিধি জহুরুল ইসলাম জহির। তিনি বলেন, সব ভাল কাজের সঙ্গে প্রথম আলো ছিল, আছে এবং থাকবে। তথ্য প্রযুক্তির জ্ঞানের আলোয় দেশকে আলোকিত করে এগিয়ে যেতে হবে। অনুষ্ঠানে শুভেচ্ছা জানিয়ে বক্তব্য রাখেন, পৌর মেয়র হারিসুর রহমান, বন্ধুসভার সম্পাদক রফিকুল ইসলাম। সমাপনি বক্তব্য রাখেন প্রথম আলোর গৌরনদী প্রতিনিধি জহুরুল ইসলাম জহির।

দেশ জুড়ে ইন্টারনেট উৎসব যৌথ ভাবে আয়োজন করেছে গ্রামীণ ফোন ও প্রথম আলো। সহযোগিতা অংশীদার হিসেবে আছে বিজ্ঞান ও তথ্য যোগাযোগ প্রযুক্তি মন্ত্রনালয়, বাংলাদেশ কম্পিউটার কাউন্সিল এবং ওয়েব দেখার জনপ্রিয় সফটওয়ার অপেরা মিনি। উৎসবে সার্বিক সহযোগিতায় ছিলেন প্রথম আলোর বন্ধুসভার সদস্যরা। উৎসবে আকর্ষন ছিল আই জিনিয়াস কুইজ প্রতিযোগীতা। ১১টি স্কুল ও ৩টি কলেজ  থেকে অংশ নেওয়া ১৫০ জন প্রতিযোগীর মধ্যে ৫০ আই জিনিয়াস প্রতিযোগীতায় অংশ নিয়ে সকলকে  পিছনে ফেলে গৌরনদীর আই জিনিয়াস নির্বাচিত হয়েছে মাহিলাড়া ডিগ্রী কলেজের ছাত্র আবির। তার বাবা মোঃ ফিরোজ ফোরকান একটি কলেজের অধ্যক্ষ ও মা কামরুন নাহার ওই কলেজর সহকারী অধ্যাপক। খুশিতে আত্মহারা আবির বলেন, আজ আমি খুবই আনন্দিত। আমি অনেক দুর এগিয়ে যেতে চাই। আমি তথ্য প্রযুক্তির জ্ঞান অন্বেশন করে দেশের জন্য কাজ করতে চাই। আই জিনিয়াস আবিরের হাতে প্রথম আলোর শুভেচ্ছা উপহার তুলে দেন ভেনু প্রতিষ্ঠানের প্রধান শিক্ষক মোঃ অলিউল্লাহ। গৌরনদী পাইলট মাধ্যমিক বিদ্যালয়ের প্রধান শিক্ষক মোঃ অলিউল্লাহর হাতে প্রথম আলোর শুভেচ্ছা উপহার তুলে দেন প্রথম আলোর গৌরনদী প্রতিনিধি জহুরুল ইসলাম জহির ও গ্রামীন ফোনের শুভেচ্ছা উপহার তুলে দেন গ্রামীন ফোনের কর্মকর্তা মোঃ রফিকুল ইসলাম।

ইন্টারনেট উৎসবে গৌরনদী উপজেলার গৌরনদী পাইলট মাধ্যমিক বিদ্যালয়, গৌরনদী গালর্স হাইস্কুল এন্ড কলেজ, পালরদী মডেল হাইস্কুল এন্ড কলেজ, টরকী গালর্স হাইস্কুল, ধানডোবা হাইস্কুল, বার্থী তারা মাধ্যমিক বিদ্যালয়, চাঁদশী ঈশ্বর চন্দ্র মাধ্যমিক বিদ্যালয়, নাঠে রিজিয়া মাধ্যমিক বিদ্যালয়, পিঙ্গলাকাঠী হাইস্কুল, গেরাকুল আখতারুন্নেছা মাধ্যমিক বিদ্যালয়, মাহিলাড়া ডিগ্রী কলেজ, মাহিলাড়া এ এন মাধ্যমিক বিদ্যালয়ের হাজার ছাত্র ছাত্রী ও সাধারন মানুষ উৎসবে যোগ দেন।

আরও পড়ুন

মন্তব্য করুন

Back to top button
Translate »