আর্কাইভ

বরিশাল জিলা স্কুলের ছাত্র সৌরভ হত্যা মামলায় এক জনের যাবজ্জীবন

নিজস্ব সংবাদদাতা ॥ বরিশাল জিলা স্কুলের ছাত্র ইসতিয়াক খান সৌরভ হত্যার মামলায় প্রধান আসামি রফিকুল ইসলাম শাকিলকে (১৯ ) যাবজ্জীবন কারাদন্ড ও ১০ হাজার টাকা জরিমানা অনাদায়ে আরো ৬ মাসের দন্ড দিয়েছে আদালত। এছাড়া হত্যার পর লাশ গুম করার অপরাধে তাকে আরো ৫ বছরের কারাদন্ড ও ৫ হাজার টাকা জরিমানা অনাদায়ে ৩ মাসের কারাদন্ড দেয়া হয়েছে। চুরি করা মোবাইল সেট কেনার অপরাধে মামলার অপর আসামি সরল চন্দ্র মিস্ত্রীকে (১৮) তিন বছরের কারাদন্ড, ২ হাজার টাকা জরিমানা অনাদায়ে আরো ৩ মাসের কারাদন্ডের নির্দেশ দেয়া হয়েছে।

সোমবার আসামিদের উপস্থিতিতে উল্লেখিত রায় ঘোষনা করেছেন বরিশাল জেলা ও দায়রা জজ আদালতের বিচারক একেএম সলিমউল্লাহ।

আদালত সূত্রে জানা গেছে, ২০০৯ সনের ১১ নভেম্বর বিকেলে নিখোঁজ হয় বরিশাল জিলা স্কুলের সপ্তম শ্রেনীর ছাত্র ইসতিয়াক খান সৌরভ। তাকে না পেয়ে ওইদিন রাতে কোতয়ালী থানায় সাধারন ডায়েরী করেন সৌরভের পিতা কাউনিয়া বিসিক শিল্প নগরী এলাকা বাসিন্দা ইউসুফ আলী খান। ১৬ নভেম্বর কাউনিয়া কবির মিয়ার বাগান বাড়ির পুকুর থেকে পেট ও গলা কাটা সৌরভের অর্ধগলিত লাশ উদ্ধার করা হয়। ওইদিনই ইউসুফ আলী খান বাদি হয়ে সন্দেহভাজন ৬/৭ জনকে আসামি করে কোতয়ালী থানায় হত্যা মামলা দায়ের করেন। মামলার পর ১৬ নভেম্বর সরলকে আটক করে পুলিশ। সরলের দেয়া তথ্য অনুযায়ী ১৭ নভেম্বর আটক করা হয় শাকিলকে। এরপর ২০১১ সনে ২৯ নভেম্বর মামলার তদন্তকারী কর্মকর্তা সিআইডির উপ-পরিদর্শক (এসআই) মনোয়ারা বেগম দন্ডপ্রাপ্ত দু’জনকে অভিযুক্ত করে এবং অপর আটক ৬ জনকে বাদ দিয়ে আদালতে অভিযোগপত্র জমা দেন। মামলায় ২৫ জন স্বাক্ষীর স্বাক্ষ্য গ্রহন শেষে অভিযোগ প্রমানিত হওয়ায় এ রায় ঘোষনা করা হয়।

আরও পড়ুন

Back to top button
Translate »