আর্কাইভ

বরিশালে ওষুধ তৈরির কারখানায় শ্রমিক বিক্ষোভ ॥ আটক-১০

শতাধিক রাউন্ড রাবার বুলেট নিক্ষেপ

বিশেষ প্রতিনিধি ॥  বরিশালে একটি ওষুধ তৈরির কারখানায় শ্রমিকেরা হামলা চালিয়ে ব্যাপক ভাংচুর করেছে। এসময় ১০শ্রমিককে আটক করেছে পুলিশ। আটকের ঘটনায় পরিস্থিতি আরো উত্তপ্ত হয়ে উঠলে পুলিশ শতাধিক রাউন্ড রাবার বুলেট ছুঁড়ে পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রনে আনেন। এসময় দুই পুলিশ সদস্যসহ কমপক্ষে ২০জন শ্রমিক আহত হয়েছে। ঘটনাটি ঘটেছে আজ মঙ্গলবার দুপুরে।

প্রত্যক্ষদর্শী, পুলিশ ও বিক্ষুব্ধ শ্রমিকেরা জানান, ওষুধ তৈরির কারখানা অপসোনিন ফার্মাসিটিক্যালে কর্মরত সকল শ্রমিকেরা বেতন বৃদ্ধিসহ ১২দফা দাবিতে মঙ্গলবার দুপুরে অফিসের মধ্যে বিক্ষোভ শুরু করে। এসময় বিক্ষোভ বন্ধ করতে মালিক পক্ষের লোকজনে অফিসের বিদ্যুৎ সরবরাহ বন্ধ করে দেয়। এতে ক্ষুব্ধ হয়ে শ্রমিকেরা হামলা চালিয়ে কারখানায় ব্যাপক ভাংচুর করে। বিক্ষুব্ধ শ্রমিকেরা অভিযোগ করেন, গত ১১মে বেতন বাড়ানোর নোটিশ দিলেও কর্তৃপক্ষ বিষটি এখনও বাস্তবায়নের কোন উদ্যোগ গ্রহন করেননি। খবর পেয়ে কোতয়ালী মডেল থানা পুলিশ ঘটনাস্থলে পৌঁছে পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রনে আনতে ১০জন শ্রমিককে আটক করে। শ্রমিক আটকের ঘটনায় পরিস্থিতি আরো উত্তপ্ত হয়ে উঠে। এসময় শ্রমিকেরা পুলিশকে লক্ষ্য করে ইট-পাটকেল নিক্ষেপ করে। উপায়অন্তুর না পেয়ে পুলিশ শতাধিক রাউন্ড রাবার বুলেট ছোঁড়ে। এ সময় দুই পুলিশ সদস্যসহ কমপক্ষে ২০জন শ্রমিক আহত হয়।

এ ব্যাপারে অপসোনিন ফার্মাসিটিক্যালের ম্যানেজার আব্দুল মান্নান জানান, ভাংচুরের ঘটনায় কোটি টাকার বেশি ক্ষয়ক্ষতি হয়েছে। এ ঘটনার খবর মুহুর্তের মধ্যে ছড়িয়ে পড়লে পাশ্ববর্তী অপসোস্যালাইন কোম্পানীর শ্রমিকেরাও কাজ বন্ধ করে দেয়। মেট্রোপলিটন পুলিশ কমিশনার মোঃ শামসউদ্দিন জানান, বর্তমানে পরিস্থিতি পুরোপুরি নিয়ন্ত্রনে রয়েছে। তার পরেও যেকোন ধরনের অপ্রীতিকর ঘটনা এড়াতে দু’টি কারখানার সম্মুখে বিপুল পরিমান পুলিশ মোতায়েন করা হয়েছে।

আরও পড়ুন

Back to top button
Translate »