আর্কাইভ

চিকিৎসক হত্যার এক সপ্তাহ পরেও মামলা হয়নি

প্রেমানন্দ ঘরামী ॥  বরিশাল নগরীর রুপাতলীস্থ শেফা ডায়গনস্টিক ল্যাবে কর্তব্যরত চিকিৎসক ডাঃ আরিফুর রহমানকে পিটিয়ে হত্যার এক সপ্তাহ পেরিয়ে গেলেও পুলিশ কিংবা নিহতের পরিবার থেকে আজো কোন মামলা দায়ের করা হয়নি। অভিযুক্তদের দু’জনকে আটকের পর পুলিশ ছেড়ে দেয়ায় সর্বত্র ক্ষোভের সৃষ্টি হয়েছে।

সূত্রমতে, প্রাথমিক ভাবে ময়নাতদন্ত রিপোর্টের পর আইনানুগ ব্যবস্থা গ্রহনের অজুহাত দেখিয়েছিলো কোতয়ালী থানা পুলিশ। এরইমধ্যে গত বৃহস্পতিবার ময়নাতদন্তের রিপোর্টে ডাঃ আরিফুর রহমানকে পিটিয়ে হত্যার আলামত মিলেছে বলে রির্পোট দিয়েছেন শের-ই বাংলা মেডিকেল কলেজের ফরেনসিক বিভাগ। এখন কোতয়ালী থানা পুলিশ বলছে নিহত চিকিৎসকের পরিবার মামলা না করায় অভিযুক্তদের বিরুদ্ধে মামলা রের্কড করা যায়নি। পুলিশও বাদি হয়ে মামলা দায়ের না করার ফলে পুলিশের দায়িত্ব নিয়েও জনমনে নানা প্রশ্নের সৃষ্টি হয়েছে। নিহত ডাঃ আরিফুরের ভাই প্রকৌশলী এনাম হাফিজ অভিযোগ করেন মুন্সীগঞ্জ থেকে বরিশালে মামলা করতে এলে তাদেরকেও হত্যা করা হবে বলে হুমকি দিয়েছে ল্যাব মালিক শাহীন ও তার সহযোগীরা। এ কারনে ২২ জুন ভাইয়ের লাশ বরিশাল থেকে মুন্সীগঞ্জ নিয়ে দাফন করলেও মামলা করতে সাহস পাননি তারা। লাশ নিয়ে বরিশাল থেকে ফেরার পথেই তাদেরকে মোবাইল ফোনে হত্যার হুমকি দেয়া হয়।

সূত্রে আরো জানা গেছে, ঘটনার পর পরই কোতয়ালী পুলিশ ওই ল্যাবের দু’কর্মচারীকে আটক করলেও তাদের রহস্যজনক কারনে ছেড়ে দেয়া হয়। এদিকে ডাক্তার আরিফুর হত্যার বিচারের দাবিতে বরিশালের চিকিৎসক সংগঠনগুলো আন্দোলনে নেমেছে। ইতোমধ্যে তারা মানববন্ধন কর্মসূচীসহ নানা কর্মসূচী পালন করেছেন।

আরও পড়ুন

মন্তব্য করুন

Back to top button
Translate »