লাইফ স্টাইল

চিকেন ব্রেস্ট কেন খাওয়া উচিত?

চিকেন ব্রেস্ট কেন খাওয়া উচিত জানেন? দেখে নিন এর স্বাস্থ্য উপকারিতা

আপনি কি কখনও শাক, মাশরুম এবং টমেটো দিয়ে বা কর্ন এবং বারবিকিউ সস দিয়ে চিকেন ব্রেস্টের স্বাদ উপভোগ করেছেন? যদি করে থাকেন, তবে আপনি প্রচুর প্রোটিন, ফাইবার এবং অন্যান্য স্বাস্থ্যকর পুষ্টি পেয়ে থাকবেন। চিকেন ব্রেস্ট অত্যন্ত সুস্বাদু, স্বাস্থ্যকর। এতে কম ক্যালোরি এবং উচ্চ প্রোটিন থাকে যা, ওজন হ্রাসের জন্য অন্যতম সেরা।

চিকেন ব্রেস্টের পুষ্টির মান

১০০ গ্রাম চিকে ব্রেস্টে (রান্না না করা) ৫২.৭৪ গ্রাম জল এবং ১১০১ কেজে(KJ) শক্তি রয়েছে। এটিতে ১৪.৭৩ গ্রাম প্রোটিন, ১৫.০১ গ্রাম কার্বোহাইড্রেট, ১.১ গ্রাম ফাইবার, ১৯ মিলিগ্রাম ক্যালসিয়াম, ২৩ মিলিগ্রাম ম্যাগনেসিয়াম, ২১১ মিলিগ্রাম ফসফরাস, ৫৩৬ মিলিগ্রাম সোডিয়াম এবং ২১৪ মিলিগ্রাম পটাসিয়াম রয়েছে। চিকেন ব্রেস্ট জিঙ্ক, সেলেনিয়াম, ভিটামিন সি, ভিটামিন বি-৩, ভিটামিন বি-১২, ফোলেট এবং ভিটামিন কে-এর মতো যৌগগুলিতেও সমৃদ্ধ। USDA-এর পরামর্শ অনুসারে, একজন প্রাপ্তবয়স্কের দিনে প্রায় ৫-৬.৫ আউন্স প্রোটিনের প্রয়োজন হয়।

চিকেন ব্রেস্ট কেন খাওয়া উচিত?

চিকেন ব্রেস্ট আমাদের দেহের জন্য নানান দিক থেকে প্রয়োজনীয়। চিকেন ব্রেস্টের স্বাস্থ্য সুবিধাগুলি হল –
১) পেশী ভর বজায় রাখে
চিকেন ব্রেস্ট সুস্বাদু এবং পেশীর ভর উন্নত করে। এর প্রোটিনগুলি পেশী ভর তৈরি ও রক্ষণাবেক্ষণ এবং শক্তি উন্নত করতে সহায়তা করে।
২) ওজন হ্রাস করে
চিকেন ব্রেস্ট প্রোটিনের একটি দুর্দান্ত উৎস এবং ক্যালরির পরিমাণ অত্যন্ত কম। মার্কিন যুক্তরাষ্ট্রের কৃষি বিভাগের জাতীয় পুষ্টিকর তথ্য অনুসারে, ৩ আউন্স রান্না করা মুরগির ব্রেস্টে প্রায় ১৩০ ক্যালোরি থাকে।
৩) ঘুম ভাল হয়
এতে অত্যাবশ্যক অ্যামিনো অ্যাসিড রয়েছে যা, মেজাজ স্থিতিশীল করতে, স্ট্রেস এবং উদ্বেগ হ্রাস করার জন্য আমাদের দেহে প্রয়োজন। এটি মস্তিষ্কে কার্নোসাইন এবং অ্যানসারিনের একাগ্রতাকে বাড়িয়ে তোলে যা একগ্রতা এবং ফোকাস সমস্যার সমাধানে সহায়তা করে।
৪) লাল রক্তকণিকা তৈরি করে
সমস্ত মাংসের পণ্যই ভিটামিন বি-১২ সমৃদ্ধ যা আমাদের দেহে লাল রক্তকণিকা উৎপাদন এবং স্নায়ুর জন্য প্রয়োজনীয়। চিকেন ব্রেস্ট এই ভিটামিনের একটি ভাল উৎস এবং এটি গ্রহণ করা রক্তাল্পতা এবং ক্রোনস ডিজিজের মতো রোগের ঝুঁকি প্রতিরোধ করে।
৫) অক্সিডেটিভ স্ট্রেস হ্রাস করে
এই পণ্যটিতে সেলেনিয়াম রয়েছে যা, এক ধরনের অ্যান্টি-অক্সিডেন্ট। এটি দেহে অক্সিডেটিভ স্ট্রেস হ্রাস করতে সহায়তা করে। অ্যান্টি-অক্সিড্যান্ট এমন যৌগ যা ক্যান্সার, ডায়াবেটিস, স্ট্রোক, হাঁপানি, আলজেইমার এবং আরও অনেক রোগ প্রতিরোধে সহায়তা করে।

চিকেন ব্রেস্ট খাওয়ার উপায়

এই সুস্বাদু এবং স্বাস্থ্যকর খাবারটি খাওয়ার কয়েকটি সেরা উপায় হল –
১) পাস্তা : পাস্তার স্বাদ আরও ভাল করুন, রান্না করা চিকেন ব্রেস্ট লেবু এবং মটর দিয়ে।
২) স্যান্ডউইচ : চিকেন ব্রেস্ট শসা, মূলো এবং পেঁয়াজ দিয়ে স্যান্ডউইচের মাঝে ভালভাবে স্টাফ করুন।
৩) গ্রেভি : চিকেন ব্রেস্ট মাশালায় অলিভ তেল, মাশরুম, রসুন এবং গোলমরিচ দিয়ে রান্না করুন।
৪) স্যুপ : ভাল স্বাদের জন্য এটি কর্ন স্যুপে ভালভাবে মেশাতে পারেন।
৫) নুডলস্ : আপনার পছন্দসই নুডলসে্ চিকেন ব্রেস্ট মিশিয়ে খেতে পারেন।

এই ব্যাপারে সাধারণত জিজ্ঞাস্য যে প্রশ্নগুলি থাকে, তা হল-

১) আপনি যদি প্রতিদিন চিকেন ব্রেস্ট খান তবে কী হবে?
আমাদের শরীরে পর্যাপ্ত পরিমাণে প্রতিটি পুষ্টি প্রয়োজন। চিকেন ব্রেস্টে চর্বিহীন প্রোটিন বেশি এবং ক্যালোরি কম থাকে যা ওজন হ্রাস, পেশী গঠনের জন্য এবং স্বাস্থ্যকর দেহের জন্য প্রয়োজনীয়। USDA অনুসারে, প্রতিদিন প্রোটিন গ্রহণের পরামর্শ দেওয়া হয় ৫-৬.৫ গ্রাম। যদি আমরা প্রতিদিন চিকেন ব্রেস্ট খাই পরিমাণ মতো তবে, আমাদের শরীর সুস্থ থাকবে। কিন্তু, যদি আমরা বেশি পরিমাণে গ্রহণ করি তবে, এটি প্রোটিনের বিষক্রিয়া সৃষ্টি করতে পারে এবং কিডনি ক্ষতির মতো ব্যাধি সৃষ্টি করতে পারে।
২) চিকেন কী ওজন কমাতে সাহায্য করে?
রোস্টেড বা গ্রিলড্ চিকেন খাওয়া, ফ্যাট কম ও কম ক্যালোরির কারণে আপনার ওজন হ্রাস করতে সহায়তা করতে পারে। অন্যদিকে, ফ্রায়েড চিকেন ব্রেস্ট ক্যালোরি যোগ করতে পারে এবং আপনার ওজন বাড়িয়ে তুলতে পারে।

মন্তব্য করুন

Back to top button
Translate »