আর্কাইভ

ঢাকার এয়াপোর্টে পর্নো ফিল্মের প্রদর্শন, বিশ্ব মিডিয়ায় তুলকালাম

এয়ারপোর্টের ভাবমূর্তি। বাংলাদেশের প্রধান বিমানবন্দরের টিভি ডিসপ্লেগুলোতে পর্নো চলচ্চিত্র দেখা গেছে। এএফপির সংবাদ শিরোম ছিলো-‘Porn film shown on Bangladesh airport screen’.

গত শুক্রবার সকালে এই ঘটনা ঘটে। এএফপি হযরত শাহজালাল এয়ারপোর্টে অপেক্ষমাণদের একটি আলোকচিত্রও প্রকাশ করেছে । পিটিআইও এ বিষয়ে খবর পরিবেশন করেছে। হযরত শাহজালাল বিমানবন্দরের কর্তৃপক্ষ অবশ্য ইতিমধ্যেই একটি তদন্ত কমিটি গঠন করেছে। ম্যাজিস্ট্রেট সিদ্দিকা আখতার বলেছেন, ওই সময়ে কর্মরত ম্যাজিস্ট্রেটকে ঘটনার পরপরই দু’মাসের জেল দেয়া হয়েছে। আর এর সঙ্গে কোন ধরনের অপরাধমূলক অভিসন্ধি রয়েছে কিনা সেটা এখন খতিয়ে দেখা হচ্ছে।

এএফপি পরিবেশিত সংবাদে বলা হয়, বিমানবন্দরের কর্মকর্তারা বলেছেন, শুক্রবার সকালে যথারীতি টিভির পর্দাগুলোতে বাংলাদেশের নিসর্গ ও আবহমান বাংলার দৃশ্যাবলীর প্রদর্শনই প্রত্যাশিত ছিল। অন্যান্য দিনের মতোই টার্মিনালের বিভিন্ন পয়েন্টে অপেক্ষমাণ বা বিশ্রামরত ছিলেন যাত্রী ও তাদের আত্মীয়স্বজন। হঠাৎ সেখানে ভোজবাজির মতোই পর্নো ফিল্ম প্রদর্শন শুরু হয়। কর্তব্যরত কর্মকর্তারা কিংকর্তব্যবিমূঢ় হয়ে পড়েন। কিছু বোঝার আগে ফিল্ম চলতে থাকে। তবে পাঁচ মিনিটের বেশি সময় এটা ঘটেনি। কেউ কেউ বলছেন যে, বিষয়টি দুর্ঘটনা বা অনিচ্ছাকৃত। টিভি কন্ট্রোলরুমে কর্মরত কারো ব্যক্তিগত সংগ্রহে থাকা ভিডিও বেহাত হওয়ার পরিণতিতে এই দুর্ঘটনা ঘটে। এএফপি বলেছে,বহির্বিশ্বে বাংলাদেশের একটি পরিচ্ছন্ন ও রক্ষণশীল ইমেজ রয়েছে। বিষয়টি সে কারণে দুনিয়া জুড়ে মিডিয়ায় হৈচৈ ফেলে দেয়। গালফ নিউজ বলেছে, মুসলিম অধ্যুষিত দেশটিতে সেক্স এখনও নিষিদ্ধ বস্তু হয়েই আছে। এই ঘটনাটি আন্তর্জাতিক মহলে বাংলাদেশের ভাবমূর্তি ক্ষুন্ন করেছে বলে অভিমত জানিয়েছেন একাধিক প্রবাসী। ম্যাজিস্ট্রেট সিদ্দিকা আখতার আরও জানিয়েছেন, ভবিষ্যতে যাতে এরকম ঘটনা না ঘটে সে জন্যে প্রয়োজনীয় ব্যবস্থা নিতে সিভিল এভিয়েশন কতৃপক্ষকে নির্দেশ দেয়া হয়েছে। তিনি আবারও জোর দিয়ে বলেন, প্রাথমিকভাবে এটা দুর্ঘটনা বলেই প্রমাণিত হয়েছে। বাংলাদেশে এই ঘটনাটি খুব বেশি জানাজানি না হলেও প্রবাসীদের মাঝে ব্যাপক চাঞ্চল্য ও ক্ষোভের সৃস্টি করেছে।

এএফপি পরিবেশিত সংবাদটি দেখুন-
Click This Link

 

Source : দ্য বেঙ্গলি টাইমস ডটকম

আরও পড়ুন

মন্তব্য করুন

Back to top button
Translate »