আর্কাইভ

ভোলায় প্রতিবন্ধীদের ওপর যৌন নির্যাতনের অভিযোগে সংবাদ সম্মেলন

ও ডিনসহ অন্যদের বিরুদ্ধে যৌন নির্যাতনের অভিযোগ এনেছেন প্রতিষ্ঠানের শিক্ষিকা (শারিরীক প্রতিবন্ধী) লাইলী বেগম।ম ঙ্গলবার দুপুরে ঢাকা রিপোর্টার্স ইউনিটিতে (ডিআরইউ) সংবাদ সম্মেলনে তিনি এ অভিযোগ আনেন। ভোলার ওই প্রতিবন্ধী স্কুলে অসহায়দের লালন-পালনের নামে পরিচালক এম আলী ও সদস্য খালেক প্রতিনিয়ত প্রতিবন্ধীদের ওপর যৌন নির্যাতন চালাচ্ছে। তিনি অভিযোগ করে বলেন, ষাটার্ধ্ব এম আলীর পরিবারের সবাই ঢাকায় থাকায় তিনি ওই স্কুলে অবস্থান করে শারীরিক প্রতিবন্ধীদের যৌন নিপিড়ন চালান। প্রতিদিন রাতে একজন করে প্রতিবন্ধী মেয়ের সঙ্গে তিনি রাত যাপন করেন। আলীর সঙ্গে খালেকও অবৈধকাজে যুক্ত হয়ে পড়ে। বিদেশি ডোনারদের লাখ লাখ টাকার সাহায্যে ওই প্রতিবন্ধী স্কুলটি পরিচালিত হয়ে আসছে বলে লাইলী বেগম জানান। এম আলীর যৌন নির্যাতনের কথা কাউকে বলতে গেলে তাদের বিভিন্নভাবে হুমকি দেওয়া হতো। স্কুল থেকে বের করে দেওয়ার ভয়ে কেউ এসব নির্যাতনের কথা বাইরে বলতে চাইত না। লাইলী বেগম জানান তিনি, শিক্ষিকা সীমা বেগম ও অপর দৃষ্টিপ্রতিবন্ধী শিক্ষার্থী সুফিয়াসহ অনেকে এই ঘটনাটি স্থানীয় সাংবাদিক কামরুল হাসান অটলকে জানালে তিনি পত্রিকায় রিপোর্ট প্রকাশ করেন। কামরুল হাসান অটল বরিশাল থেকে প্রকাশিত ‘দৈনিক শাহানাম’ পত্রিকার ভোলা প্রতিনিধি। সংবাদপত্রে রিপোর্ট প্রকাশের পর ক্ষুব্ধ হয়ে এম আলী ওই সাংবাদিকের বিরুদ্ধে মামলা করে এবং পুলিশকে টাকা দিয়ে তাকে পুলিশে ধরিয়ে দেয়।

আরও পড়ুন

আরও দেখুন...
Close
Back to top button