আর্কাইভ

পৈত্রিক সম্পত্তি ফিরে পেতে চায় দিনমজুর রহিম

জনপ্রতিনিধি, প্রশাসনসহ বিভিন্ন স্থানে ঘুরে বেড়াচ্ছেন দিনমজুর রহিম হাওলাদার (৪০)। সবখানেই তিনি হচ্ছেন উপেক্ষিত। প্রতিপক্ষ প্রভাবশালীদের ভয়ে এলাকার কেহ মুখ খুলতে সাহস পাচ্ছেন না। পৈত্রিক সম্পত্তি ফিরে পেতে দিনমজুর আব্দুর রহিম প্রশাসনসহ সংশ্লিষ্ট দপ্তরের উর্ধ্বতন কর্মকর্তাদের আশু হস্তক্ষেপ কামনা করেছেন।

গতকাল শনিবার বরিশালের গৌরনদী প্রেসক্লাবে হাজির হয়ে বাবুগঞ্জের আগরপুর গ্রামের মৃত বেলায়েত হাওলাদারের পুত্র দিনমজুর আব্দুর রহিম হাওলাদার জানান, আগরপুর মৌজার বিভিন্ন দাগে তার পিতার রেখে যাওয়া ৪৬ শতক জমির ওপর দীর্ঘদিন থেকে লোলুপ দৃষ্টি পরে একই গ্রামের প্রভাবশালী হান্নান হাওলাদার, কবির উদ্দিন, গোলাম মস্তফা ও ফরিদ উদ্দিন গংদের। বিভিন্ন সময় তারা জাল দলিলের মাধ্যমে রহিমের পৈত্রিক সম্পত্তির মালিকানা দাবি করে ভয়ভীতি প্রদর্শন করে আংশিক সম্পত্তি দখল করে নেয়। এরইমধ্যে বিগত ২০০৭ সনের ২৪ জুলাই ৩০ ধারার মাঠ জড়িপে মোটা অংকের টাকার বিনিময়ে জরিপ অফিসার মাখন লাল দিনমজুর রহিমের পৈত্রিক সম্পত্তি তার প্রতিপক্ষের নামে রেকর্ড করে দেয়। এ খবর জানতে পেরে দিনমজুর রহিম হাওলাদার, পূর্ণতদন্তের জন্য ভূমি অধিদপ্তরের মহাপরিচালকের কাছে আবেদন করেন। আবেদনের ভিত্তিতে মহাপরিচালক তদন্ত পূর্বক প্রতিবেদন দাখিলের জন্য বরিশালের জোনাল অফিসারকে নির্দেশ প্রদান করেন। নির্দেশ পেয়ে জোনাল অফিসার তদন্ত করে ৩১ ধারার আপিলে গত ১৩ জুলাই শুধুমাত্র দখলে থাকায় ৩০ ধারার রায় বহাল রাখে।

এতে হতাশাগ্রস্থ হয়ে পরেন দিনমজুর রহিম। পূর্ণরায় মামলার পূর্ণবিচারের আশায় তিনি বরিশাল সেটেলমেন্ট অফিসের জোনাল অফিসারের কাছে আবেদন করেছেন। এ খবর শুনে প্রতিপক্ষের প্রভাবশালীরা দিনমজুর রহিমকে বিভিন্ন ধরনের ভয়ভীতিসহ হুমকি প্রদর্শন অব্যাহত রেখেছে। প্রভাবশালীদের হুমকির মুখে অসহায় দিনমজুর রহিম হাওলাদার তার পরিবার পরিজন নিয়ে এখন চরম নিরাপত্তহীনতায় ভূগছেন।

আরও পড়ুন

Back to top button
Translate »