আর্কাইভ

ঝালকাঠি জেলা শিক্ষা অফিসারসহ তিনজনের বিরুদ্ধে মামলা

আহম্মেদ আবু জাফর, ঝালকাঠিঃ ঝালকাঠি জেলা শিক্ষা অফিসারসহ ৩ জনের বিরুদ্ধে প্রতারনা মামলা দায়ের করা হয়েছে। বৃহস্পতিবার নলছিটির কুলকাঠি শহীদিয়া দাখিল মাদ্রাসার এবতেদায়ী সহকারী মৌলভী কাজী মো: জামাল উদ্দিন বাদী হয়ে ঝালকাঠি সিনিয়র জুডিশিয়াল ম্যাজিষ্ট্রেট’র আদালতে মামলাটি দায়ের করা হয়। মামলায় জেলা শিক্ষা অফিসার মাহবুবা হোসেন, মাদ্রাসা ম্যানেজিং কমিটির সভাপতি সামসুল আলম মল্লিক ও ভারপ্রাপ্ত সুপার মাসুদুর রহমানের বিরুদ্ধে ৪২০/৪৬৫/৪৬৬/৪৬৮ ও ৩৪ ধারার অভিযোগ এনে মামলাটি দায়ের করেন। আদালত মামলাটি আমলে নিয়ে তদন্তের জন্য ঝালকাঠি সদর থানার অফিসার ইনচার্জকে দায়িত্ব প্রদান করেছেন।

মামলার অভিযোগ করা হয়, আসামীরা জাল স্মারক এবং সিল স্বাক্ষরের মাধ্যমে ঐ মাদ্রাসার সুপার গাজী মো: রফিকুল্লাহ নেছারী ও কাজী মো: জামাল উদ্দিনের নাম এমপিও থেকে নাম কর্তন করে। চলতি বছরের ২০ জানুয়ারী ৪২৭ নং স্মারকে মাদ্রাসার প্রতিষ্ঠাতা সুপার গাজী মো: রফিকুল্লাহ নেছারীর ( ইনডেক্স নং ৪৭১৫১৯) নাম কর্তনের জন্য জাল কাগজপত্র দাখিল করে। অনুরুপভাবে ঐ মাদ্রাসার এবতেদায়ী সহকারী মৌলভী কাজী মো: জামাল উদ্দিনের (ইনডেক্স নং ৪৭১৫২৩) চলতি বছরের ১ মার্চ  পদত্যাগ পত্র দাখিল  এবং ৯ মার্চ ম্যানেজিং কমিটি কর্তৃক অনুমোদন করে। যা ঝালকাঠি জেলা শিক্ষা অফিস কর্তৃক ৪২৭ নং স্মারকে এ বছরের ২০ মার্চ মাধ্যমিক উচ্চ শিক্ষা অধিদপ্তরের মহাপরিচালক বরাবরে প্রেরন করা হলে এবং ঐ দু’শিক্ষকের নাম এমপিও থেকে কর্তন করা হয়। উল্লেখ্য, ঐ মাদ্রাসার নামে  ২০ জানুয়ারী ২০১১ তারিখে ৪২৭ নং স্মারক এবং ২০ মার্চ ৪৯৭ নং স্মারকে ঝালকাঠি জেলা শিক্ষা অফিসারের দপ্তর থেকে মহাপরিচালক বরাবরে কোন চিঠি প্রেরন করা হয়নাই মর্ম্মে মামলায় উল্লেখ করা হয়।

বাদীর দাবী আসামী সহকারী মৌলভী মো: মাসউদুর রহমান ভারপ্রাপ্ত সুপার হিসেবে দায়িত্বে থেকে অসৎ উদ্দেশ্যে তাদের এমপিও থেকে নাম কর্তন করা হয়েছে।

আরও পড়ুন

Back to top button
Translate »