আর্কাইভ

বাটাজোরে যৌতুকের দাবিতে গৃহবধূকে নির্যাতনের পর হত্যা

নিজস্ব সংবাদদাতাঃ যৌতুকের দাবিতে এক গৃহবধূকে নির্যাতনের পর হত্যা করা হয়েছে বলে অভিযোগ পাওয়া গেছে। পুলিশ গৃহবধূর লাশ উদ্ধার করে ময়নাতদন্তের জন্য আজ বুধবার মর্গে প্রেরন করেছে। ঘটনাটি ঘটেছে বরিশালের গৌরনদী উপজেলার বাটাজোর ইউনিয়নের প্রত্যন্ত বছার গ্রামে।

উপজেলার পশ্চিম চন্দ্রহার গ্রামের মৃত আজাহার শরীফের পুত্র ও নিহত গৃহবধূ আকলিমা বেগমের (৩২) ভাই দিনমজুর ইদ্রিস শরীফ অভিযোগ করেন, বছার গ্রামের কালাম ফকিরের সাথে ১০ বছর পূর্বে তার বোন আকলিমার বিয়ে হয়। বিয়ের পর তাদের সংসারে একটি কন্যা সন্তান জন্মগ্রহন করে। বিয়ের পরবর্তী সময় থেকে প্রায়ই মোটা অংকের টাকা যৌতুকের দাবিতে কালাম ও তার পরিবারের লোকজন আকলিমাকে শারিরিক নির্যাতন করে আসছিলো। তারই ধারাবাহিকতায় মঙ্গলবার (২০ সেপ্টেম্বর) রাতে নির্যাতনের এক পর্যায়ে আকলিমাকে হত্যা করা হয়। পরবর্তীতে লোকদেখানো ভাবে ওইদিন রাতে আকলিমাকে গৌরনদী হাসপাতালে নিয়ে আসলে কর্তব্যরত চিকিৎসক তাকে মৃত বলে ঘোষনা করে। এসময় তরিঘরি করে আকলিমার লাশ হাসপাতাল থেকে বাড়িতে নিয়ে আসা হয়। আজ বুধবার সকালে খবর পেয়ে তারা বছার গ্রামের আকলিমাদের বাড়িতে গেলে নির্যাতনের বিষয়টি স্পট হয়ে যায়। এসময় থানা পুলিশকে খবর দেয়া হলে পুলিশ ওই বাড়ি থেকে নিহত গৃহবধূ আকলিমার লাশ উদ্ধার করে ময়নাতদন্তের জন্য বরিশাল মর্গে প্রেরন করে। এ ঘটনায় মামলা দায়েরের প্রস্তুতি চলছে।

এ ব্যাপারে গৌরনদী থানার অফিসার ইনচার্জ ওসি মোঃ নুরুল ইসলাম-পিপিএম বলেন, এ ঘটনায় এখনো কেউ লিখিত অভিযোগ দায়ের করেননি। নিহতের লাশের ময়নাতদন্তের রির্পোটের ওপর ভিত্তি করেই আইনগত ব্যবস্থা নেয়া হবে।

আরও পড়ুন

Back to top button
Translate »