আর্কাইভ

শিক্ষক ফরিদ হত্যা মামলার বাদিকে জীবন নাশের হুমকির অভিযোগ

নিজস্ব সংবাদদাতাঃ বরিশালের গৌরনদী উপজেলার পিঙ্গলাকাঠী মডেল সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়ের সহকারী শিক্ষক মোঃ ফরিদ জমাদ্দার (২৮) হত্যা মামলার বাদিকে তিনটি মোবাইল ফোন থেকে গালিগালাজসহ মামলা প্রত্যাহারের জন্য জীবন নাশের হুমকি দেয়া হয়েছে বলে অভিযোগ পাওয়া গেছে। এ ঘটনায় মামলার বাদি নিহতের বড় ভাই নাঠৈ সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়ের সহকারী শিক্ষক মোঃ শাহ জালাল জমাদ্দার গৌরনদী থানায় একটি সাধারন ডায়রি করেছেন। অপরদিকে সর্বদলীয় শিক্ষক সংগ্রাম পরিষদের লাগাতার কর্মসূচীর সপ্তম দিনে বৃহস্পতিবার উপজেলার সকল প্রাথমিক বিদ্যালয়ে কালো পতাকা উত্তোলন ও বিকেলে প্রতিবাদ সভা অনুষ্ঠিত হয়েছে।

মামলার বাদি নিহতের ভাই শাহ জালাল জমাদ্দার অভিযোগ করেন, বুধবার রাতে ও আজ বৃহস্পতিবার সকালে তার ব্যবহৃত (০১৭২৪-০৫৫৯৩৫) নাম্বার মোবাইল ফোনে (০১৭৩৬-০৮১০৫৯, ০১৭৬২-৫৮১৭৯৪, ০১৭৫০-৫২৪৩১১) নম্বর মোবাইল ফোন থেকে ফোন করে অকথ্য ভাষায় গালিগালাজ করে নানা ধরনের ভয়ভীতি প্রদর্শন করা হয়। এক পর্যায়ে মামলা প্রত্যাহারের জন্য হুমকি প্রদর্শন করা হয়। অন্যথায় তাকেসহ তার পরিবারের সবাইকে জীবন নাশেরও হুমকি দেয়া হয়। হুমকির পর থেকে নিহত শিক্ষকের পরিবার নিরাপত্তাহীনতায় ভূগছেন। এ ঘটনায় শাহ জালাল জমাদ্দার ও তার পরিবারের নিরাপত্তা চেয়ে গৌরনদী থানায় একটি সাধারন ডায়রী করেছেন। মামলার তদন্তকারী কর্মকর্তা গৌরনদী থানার পুলিশ পরিদর্শক (তদন্ত) মোঃ মিজানুর রহমান সত্যতা স্বীকার করে বলেন, গ্রামীন ফোন কর্তৃপক্ষের কাছে উল্লেখিত মোবাইল ফোন নাম্বারের সঠিক মালিকানা যাচাই বাছাইয়ের জন্য কাগজপত্র প্রেরন করা হয়েছে। অপরদিকে সর্বদলীয় শিক্ষক সংগ্রাম পরিষদের লাগাতার কর্মসূচীর সপ্তম দিনে গতকাল বৃহস্পতিবার উপজেলার সকল প্রাথমিক বিদ্যালয়ে কালো পতাকা উত্তোলন ও বিকেলে গৌরনদী আল-হেলাল একাডেমী প্রাঙ্গনে স্মরন সভা অনুষ্ঠিত হয়েছে। স্কুলের প্রধান শিক্ষক আঃ ছালামের সভাপতিত্বে স্মরন সভায় বক্তব্য রাখেন উপজেলা প্রাথমিক শিক্ষক সমিতির সভাপতি ও সর্বদলীয় শিক্ষক সংগ্রাম পরিষদের আহবায়ক টি.এম আলতাফ হোসেন, উপজেলা প্রাথমিক শিক্ষক সমিতির সাধারন সম্পাদক কুতুব উদ্দিন আহম্মেদ, সিনিয়র সভাপতি মোঃ মুনসুর আহম্মেদ, শিক্ষক মিজানুর রহমান, সফিকুল আলম, শওকত হোসেন, সেলিম আহম্মেদ, সুদাম পাল, স্বপন কুমার, আঃ রহিম মিয়া, অমূল্য রতন কর প্রমুখ।

আরও পড়ুন

Back to top button
Translate »