আর্কাইভ

রাজনৈতিক উদ্দেশ্যে সরকার র‌্যাবকে ব্যবহার করছে -ব্রিগেডিয়ার (অব.) হান্নান শাহ

খোন্দকার কাওছার হোসেন : রাজনৈতিক উদ্দেশ্যে সরকার আধাসামরিক বাহিনী র‌্যাবকে ব্যবহার করছে বলে অভিযোগ করেছেন বিএনপির স্থায়ী কমিটির সদস্য ব্রিগেডিয়ার জেনারেল (অব.) আ স ম হান্নান শাহ। গতকাল সোমবার দুপুরে জাতীয় প্রেসক্লাবে জাগ্রত জনতা ফোরাম আয়োজিত ‘রাজনৈতিক নেতৃবৃন্দের ওপর আইন শৃঙ্খলা বাহিনীর নির্যাতন, তথা ভূলন্ঠিত গণতান্ত্রিক সংস্কৃতি প্রেক্ষিত বাংলাদেশ’ শীর্ষক গোলটেবিল আলোচনা সভার প্রধান অতিথির বক্তব্যে তিনি এ অভিযোগ করেন।

জাগ্রত জনতা ফোরামের উপদেষ্টা টিএম গিয়াস উদ্দিন আহমেদের সভাপতিত্বে এ অনুষ্ঠানে অন্যদের মধ্যে বক্তব্য রাখেন বিএনপির যুগ্ম মহাসচিব আমান উল্লাহ আমান, আন্তর্জাতিক বিষয়ক সম্পাদক নাজিম উদ্দিন আলম, ফেডারেল সাংবাদিক ইউনিয়নের সভাপতি রুহুল আমিন গাজী, অ্যাড. সাইফুর রহমান, মেজর (অব.) এম এম মেহবুব রহমান, কর্নেল (অব.) শাহজাহান মিলন, সম্মিলিত পেশাজীবী ফোরামের মহাসচিব প্রকৌশলী আল আমিন ও জাগ্রত জনতা ফোরামের চেয়ারম্যান শরীফ চৌধুরী প্রমুখ।

হান্নান শাহ বলেন, রাজনৈতিক উদ্দেশে র‌্যাবকে ব্যবহার করছে বর্তমান সরকার। তাদের বিরুদ্ধে যারা কথা বলে তাদের ওপর হামলা, মামলা ও নির্যাতন চালানো হচ্ছে।

তিনি বলেন, প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা বিএনপির চেয়ারপারসন খালেদা জিয়াকে নির্বাচনে অংশ নেয়ার জন্য বলেছেন। কিন্তু খালেদা জিয়া তার দেয়া শর্তগুলো পূরণ হওয়া ছাড়া নির্বাচনে অংশ নেবেন না।

তিনি বলেন, আওয়ামী লীগের ভেতর গণতন্ত্রের চর্চা নাই। তারা হচ্ছে গোঁয়াড়- গোবিন্দের দল। ক্ষমতায় আসলে প্রতাপ দেখিয়ে বেড়ায়। আর ক্ষমতায় না থাকলে ইদুরের মতো গর্ত থেকে বের করতে হয়। বর্তমান সরকার ব্যর্থ উল্লেখ করে তাদের সব অন্যায় ও অপকর্মের বিচারের দাবি জানান তিনি।

বিএনপির যুগ্ম-মহাসচিব আমানুল্লাহ আমান বলেন, গণতন্ত্র আজ বুটের তলায়। পুলিশ বুট দিয়ে গলা টিপে ধরছে। একটি রাজনৈতিক দলের সেক্রেটারিকে ডা-াবেরি পরিয়েছে। এটা কোন ধরনের গণতন্ত্র। জনগণ কখনো ক্ষমা করবে না। তাদের অবশ্যই বিচার হবে। আগামী ১০ অক্টোবর লং মার্চে বাধা দিলে হাসিনার পতন ওই জায়গা থেকেই শুরু হবে।

আরও পড়ুন

Back to top button
Translate »