আর্কাইভ

রাজাপুরে শিশু গণধর্ষণের মামলায় দু’শিশু কারাগারে

আহমেদ আবু জাফর, ঝালকাঠি ॥ জেলার রাজাপুর উপজেলার হাজিরহাট গ্রামে ৭ বছরের এক (মেয়ে) শিশুকে দুই শিশু গণধর্ষনের অভিযোগে থানায় মামলা হয়েছে। শনিবার রাতে ধর্ষনের শিকার শিশুর মা বাদী হয়ে রাজাপুর থানায় মামলা (নং-০৫) দায়ের করেছে। থানা পুলিশ এ অভিযোগে একই গ্রামের মজিবর রহমানের ছেলে মামুন (১২) ও ইউনুচ আলীর ছেলে খায়রুলকে (১৩) শনিবার রাতে তাদের নিজ নিজ বাড়ি থেকে গ্রেফতার করে। শিশুটি বারবাকপুর রেজিঃ প্রাথমিক বিদ্যালয়ের দ্বিতীয় শ্রেনীর ছাত্রী বলে জানাগেছে। আটককৃত দু’জনকে রোববার ঝালকাঠি আদালতের মাধ্যমে কারাগারে পাঠানো হয়েছে।

মামলা ও স্থানীয় সূত্রে জানা গেছে, গত ২৯ সেপ্টেম্বর বিকেলে মামুন ও খায়রুল বাগানে সুপারি পাড়তে ছিল এ সময় ওই শিশুটিকে দেখে বিভিন্ন প্রলোভন দেখিয়ে ওই সুপারি বাগানে নিয়ে জোরপূর্বক ধর্ষণ করে। এ সময় শিশুটির ডাক-চিৎকারে স্থানীয়রা ছুটে এসে তাকে রক্তাক্ত অবস্থায় উদ্ধার করে স্থানীয়ভাবে চিকিৎসা দেয়।
 
স্থানীয় প্রভাবশালীরা ধর্ষনের শিকার ও ধর্ষকদের শালিস মিমাংসার আশ্বাস দিয়ে প্রথমে থানায় অভিযোগ না করলেও শালিসরা ব্যর্থ হলে শিশুটির মা আমেনা বেগম শনিবার রাতে রাজাপুর থানায় নারী ও শিশু নির্যাতন দমন আইনের ৯ (৩) ধারায় দু’জনকে অভিযুক্ত করে একটি ধর্ষন মামলা দায়ের করে।  রবিবার দুপুরে ধর্ষিতার ডাক্তারী পরীক্ষা সম্পন্ন হয়েছে।

মামলার তদন্তকারী কর্মকর্তা রাজাপুর থানার উপ-পরিদর্শক আঃ হালিম তালকদার সাংবাদিকদের জানান, ধর্ষিতার মা বাদী হয়ে ধর্ষক মামুন ও খায়রুলকে আসামী করে মামলা দায়ের করলে তাদেরকে গ্রেফতার করা হয়।

আরও পড়ুন

Back to top button
Translate »