আর্কাইভ

বাবুগঞ্জে মেয়াদোত্তীর্ন কমিটি দিয়েই চলছে ছাত্রলীগ ও ছাত্রদল

আরিফ হোসেন, বাবুগঞ্জ ॥ বিবাহিত ও অছাত্রদের দিয়ে চলছে বরিশালের বাবুগঞ্জ উপজেলা ছাত্রদল এবং ছাত্রলীগের সাংগঠনিক কার্যক্রম।ফলে এ দুই সংগঠনের সাংগঠনিক কার্যক্রম ঝিমিয়ে পড়েছে।

দলীয় একাধিক সুত্রে জানা গেছে,বাবুগঞ্জ উপজেলায় ৮বছর ধরে উপজেলা ছাত্রলীগ ও ৯ বছর ধরে ছাত্রদলের কোন সম্মেলন না হওয়ায় সাধারন ছাত্র নেতা কর্মীদের মাঝে ক্ষোভের সৃষ্টি হচ্ছে।এতে উপজেলা ছাত্রলীগ ও ছাত্রদলের রাজনীতি নেতৃত্ববিহীন হয়ে পড়েছে।বিপুল সংখ্যক ছাত্রনেতা দীর্ঘদিন ধরে পদ প্রত্যাশী হয়ে দলীয় কর্মকান্ডে সক্রীয় ভুমিকা রাখলেও দীর্ঘ দিন ধরে সম্মেলন না হওয়ার ফলে তাদের মধ্যে হতাশা বিরাজ করছে।মেয়াদোত্তীর্ন উপজেলার দুই ছাত্র সংগঠনের বর্তমান কমিটিতে পদ-পদবীধারী অধিকাংশ নেতারই ছাত্রত্ব নেই।উপজেলার ৬টি ইউনিয়নের ইউনিয়ন সভাপতি ও সাধারন সম্পাদকসহ অনেক নেতাই বিবাহিত ।তারা অনেকেই ব্যবসা বানিজ্য,ঠিকাদারী,চাকুরি ও সংসার নিয়ে ব্যস্ত সময় কাটাচ্ছেন । এ অবস্থায় তৃনমুল পর্যায় নেতা-কর্মিরা তাদের উপর বিশ্বাস ও আস্থা হারিয়ে ফেলেছেন । জানা যায়,২০০৩সালে আক্তারুজ্জামান মিলন সভাপতি ও মনির হোসেন রুমন কে সম্পাদক করে উপজেলা ছাত্রলীগের ৫১সদস্য বিশিষ্ট কমিটি গঠন করা হয়। কমিটির মেয়াদ ২ বছর থাকলেও ৮বছর পেরিয়ে গেলেও অদ্যবধি নতুন কমিটি গঠন করা হয়নি।ওই মেয়াদোত্তীর্ন কমিটি দিয়ে চলছে দলের কার্যক্রম । অপর দিকে,২০০২সালে দুলাল চন্দ্রসাহা কে সভাপতি ও নজরুল ইসলাম বিপ্লব মোল্লাকে সম্পাদক করে৫১সদস্য বিশিষ্ঠ উপজেলা ছাত্রদলের কমিটি গঠন করা হয়। ওই মেয়াদোর্ত্তীন কমিটি দিয়েই চলছে দলীয় কার্যক্রম।তাদের দিয়ে দলীয় কার্যক্রম পরিচালনা করায় তৃনমুলের নেতা-কর্মিরা দলের হাইকমান্ডের ওপর ক্ষুদ্ব রয়েছেন বলে জানা গেছে।

আরও পড়ুন

Back to top button
Translate »