আর্কাইভ

চাকুরিচ্যুতির নোটিশ পেয়ে আতংকিত গৌরনদীর এক প্রাইমারি প্রধান শিক্ষক

গৌরনদী সংবাদদাতা ॥ জেলা শিক্ষা অফিসার কর্তৃক চাকুরীচ্যুতি ও বিভাগীয় মামলা দায়েরের নোটিশ পেয়ে  আতংকিত ও দিশেহারা হয়ে পড়েছেন বরিশালের গৌরনদী উপজেলার বড় কসবা সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়ের প্রধানশিক্ষক টি.এম আলতাফ হোসেন।

তিনি জানান, গৌরনদীর পিঙ্গলাকঠিী মডেল সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়ের সহকারী শিক্ষক ফরিদ জমাদ্দারের খুনের ঘটনাকে রাজনৈতিক হত্যাকান্ড হিসেবে আন্দোলনে নামার অজুহাতে বরিশালের জেলা প্রথমিক শিক্ষা অফিসার শাহ আলম তার বিরুদ্ধে অন্যায়ভাবে সরকারি কর্মচারী বিধিমালা লংঘনের অভিযোগ এনে চার্জ গঠন ও তাকে চাকুরী থেকে বরখাস্তের নোটিশ প্রদান করেছেন। শিক্ষক টি.এম আলতাফ হোসেন তার বিরুদ্ধে আনিত অভিযোগ সম্পূর্ণ মিথ্যা ও ভিত্তিহীন উল্লেখ করে বলেন, জেলা শিক্ষা অফিসার একইদিন দু’বার তার বিদ্যালয় পরিদর্শন করতে এসে বিদ্যালয়ের বিভিন্ন রেজিষ্টার খাতা বিদ্যালয়ের জমির দলিল, চেক বই ও মূল্যবান কাগজ পত্র নিয়ে গেছেন। তিনিসহ অন্য শিক্ষকদের চাকুরি থেকে বরখাস্থ করারও হুমকি প্রদান করেছেন। হয়রানী থেকে প্রতিকার পাওয়ার আশায় তিনি প্রাথমিক ও গণশিক্ষা মন্ত্রনালয়ের সচিবসহ উর্ধ্বতন কর্তৃপক্ষের নিকট আবেদন করেছেন। জেলা প্রাথমিক শিক্ষা অফিসার শাহ আলম তার অভিযোগে উল্লেখ করেন, গত ২২ সেপ্টেম্বর পিঙ্গলাকাঠী সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়ের সহকারী শিক্ষক ফরিদ জমাদ্দার সন্ত্রাসীদের হাতে নির্মমভাবে খুন হওয়ার ঘটনাকে টি.এম আলতাফ হোসেন রাজনৈতিক হত্যাকান্ড হিসেবে প্রতিষ্ঠিত করার অপচেষ্টা করেছেন। এ ঘটনাকে কেন্দ্র করে সরকার পতনের হুমকিও প্রদান করেছেন এবং সাধারন শিক্ষকদের শ্রেনী পাঠদান থেকে বিরত রাখার অপচেষ্টা করেছেন। যাহা সরকারি বিধিমালা ১৯৮৫এর ৩(বি) ধারা মোতাবেক অসদাচরনের আওতাভুক্ত অপরাধ। গত ২২ জানুয়ারি টি.এম আলতাফ হোসেনের বিরুদ্ধে বিভাগীয় চার্জ গঠন করেন জেলা প্রাথমিক শিক্ষা অফিসার শাহ আলম।

আরও পড়ুন

Back to top button
Translate »