আর্কাইভ

পথে পথে বাঁধা – গ্রেফতার আতংকে ঝালকাঠি বিএনপি নেতা-কর্মীরা

ঝালকাঠি সংবাদদাতা ॥ চল চল ঢাকা চলো বিএনপির ডাকা মহা সমাবেশকে কেন্দ্র করে ঝালকাঠিসহ দক্ষিনাঞ্চলের জেলা-উপজেলার নেতা-কর্মিদের মধ্যে ব্যাপক সাড়া পড়েছে। চলো চলো ঢাকা চলো পোষ্টারে ছেয়ে গেছে ঝালকাঠি শহর, গ্রাম বন্দর। ইতিমধ্যে বিএনপি দলীয় নেতা-কর্মিরা ঢাকা যাওয়ার উদ্দ্যেশে লঞ্চ ও বাস যোগে প্রস্তুতি নিচ্ছে।

প্রশাসন ও ক্ষমতাসীন দলের ঊৎকন্ঠায় তারা সমবেত হয়ে কোথাও মিটিং করতে পারছেনা। শীর্ষ নেতাদের কমান্ডে বিএনপির নেতা-কর্মিরা গেরিলা কায়দায় ঢাকা অভিমূখে ছুটছে বলে জানিয়েছেন বিএনপি নেতা মিঞা আহমেদ কিবরিয়া। বিএনপির নেতাকর্মিরা ঢাকা অভিমুখে যাত্রা করতে না পারে সে জন্য কৌশলগতভাবে সরকার ও প্রশাসন দক্ষিন অঞ্চল থেকে লঞ্চ বাস ভাড়া করতে দিচ্ছেনা।

আগামীকাল ১২ মার্চ পর্যন্ত ঝালকাঠি থেকে চলো চলো ঢাকা কর্মসূচিতে লঞ্চ ও বাস ভাড়া দিতে নিষেধাজ্ঞা রয়েছে প্রশাসনের। লঞ্চ ও বাস মালিক সমিতি এ অপারগতার কথা জানিয়েছে। তৃনমূল নেতা-কর্মিরা যে যার মত করে ঢাকা যাচ্ছেন এ কর্মসূচিতে অংশ নেয়ার জন্য।  

ঝালকাঠি জেলা বিএনপির সাধারন সম্পাদক মনিরুল ইসলাম নুপুর জানিয়েছেন, রাতে বিএনপির কোন নেতা বাসায় ঘুমাতে পারছেনা প্রশাসনের তাড়ার কারনে। এছাড়া বাস ও লঞ্চে পুলিশী বাঁধায় নেতাকর্মীরা ঢাকামূখি হতে পারছেনা। শনিবার রাত ৯টা পর্যন্ত ৮জন বিএনপির ও ১জন জামায়াত নেতাকে বাসা থেকে আটক করা হয়েছে। তারা যেকোন মূল্যে কর্মসূচি সফল করতে প্রস্তুত রয়েছেন।

আরও পড়ুন

মন্তব্য করুন

Back to top button
Translate »