আর্কাইভ

বরিশালে ডিবি পুলিশ পরিচয়ে ইন্সুরেন্স কর্মকর্তাকে অপহরন

নিজস্ব সংবাদদাতা ॥ বরিশাল-ঢাকা মহাসড়কের গৌরনদী উপজেলার বাটাজোর বাইচখোলা নামকস্থান থেকে বুধবার দুপুরে ডিবি পরিচয়ে এক ইন্সুরেন্স কর্মকর্তাকে অপহরন করা হয়েছে। এ ঘটনার মাত্র আধাঘন্টা পর অপহরনের প্রায় দশ কিলোমিটার দুরত্ব থেকে হাত ও মুখ বাঁধা অবস্থায় পুলিশ মহাসড়কের পার্শ্ব দিয়ে অপহৃতাকে উদ্ধার করে। এ ঘটনায় ওইদিন সন্ধ্যায় থানায় মামলা দায়ের করা হয়েছে। অপহরনকারীরা ব্যবসায়ীর সাথে থাকা প্রায় ৭৬ হাজার টাকা লুটে নিয়েছে।

অপহৃতা উজিরপুর উপজেলার আটিপাড়া গ্রামের বাসিন্দা, মেঘনা লাইফ ইন্সুরেন্স কোম্পানী লিমিটেডের গৌরনদী ব্র্যাঞ্চ অফিসের মাঠ কর্মী ও অবসরপ্রাপ্ত সেনা কর্মকর্তা মোঃ সেলিম ঢালী (৫৯) জানান, বুধবার সকাল দশটার দিকে তিনি অগ্রনী ব্যাংক গৌরনদীর বাটাজোর শাখা থেকে ৭৬ হাজার টাকা উত্তোলন করেন। ওই টাকা নিয়ে তিনি সকাল সাড়ে দশটার দিকে টেম্পুযোগে গৌরনদী অফিসের উদ্দেশ্যে রওয়ানা হন। পথিমধ্যে বাটাজোর বাইচখোলা নামকস্থানে পৌঁছলে পিছন দিক থেকে একটি সাদা মাইক্রোবাস এসে টেম্পুটিকে ব্যারিকেট দেয়। মাইক্রোবাস থেকে ৩/৪ জন অজ্ঞাতনামা ব্যক্তিরা নেমে নিজেদের ডিবি পুলিশ পরিচয় দিয়ে সেলিমের বিরুদ্ধে মামলার অজুহাত দেখিয়ে জোড়পূর্বক গাড়িতে তুলে অপহরন করে নিয়ে যায়। এ ঘটনার মাত্র আধাঘন্টাপর উপজেলার বার্থী নামক এলাকার লোকজনে মহাসড়কের নির্জনস্থান থেকে হাত-পা ও মুখ বাঁধা অবস্থায় সেলিমকে উদ্ধার করে। খবর পেয়ে থানা পুলিশ সেলিমকে উদ্ধার করে থানায় নিয়ে আসে। সেলিম ঢালী আরো জানান, ভূয়া ডিবি পরিচয়দানকারী অজ্ঞাতনামা দুস্কৃতকারীরা তাকে মারধর করে সাথে টাকা ৭৬ টাকা ছিনিয়ে নিয়ে গেছে। এ ঘটনায় ওইদিন সন্ধ্যায় সেলিম ঢালী বাদি হয়ে অজ্ঞাতনামা আসামি করে গৌরনদী থানায় একটি মামলা দায়ের করেছেন। গৌরনদী থানার ওসি আবুল কালাম মামলা দায়েরের সত্যতা স্বীকার করেছেন।

আরও পড়ুন

Back to top button
Translate »