আর্কাইভ

বরিশালের কালু হত্যা মামলায় একজনের যাবজ্জীবন সাজা

নিজস্ব সংবাদদাতা ॥ বরিশালের আগৈলঝাড়া উপজেলার চাঞ্চল্যকর কালু হত্যা মামলার আসামি আনোয়ার হোসেন বখতিয়ারকে যাবজ্জীবন কারাদন্ড, ২০ হাজার টাকা জরিমানা অনাদায়ে আরো ৬ মাসের দন্ডাদেশ দেয়া হয়েছে। অপর আসামি রুহুল আমিনকে ৫ বছরের কারাদন্ড, ৫ হাজার টাকা জরিমানা অনাদায়ে ৩ মাসের দন্ডাদেশ দেয়া হয়েছে। মামলার প্রধান আসামি আনোয়ার হোসেন বখতিয়ারের ভাই পলাশ বখতিয়ারের বিরুদ্ধে অভিযোগ প্রমানিত না হওয়ায় তাকে বেখসুর খালাস দেয়া হয়েছে। গতকাল বুধবার জেলা ও দায়রা জজ কে.এম সলিমুল্লহ এ রায় ঘোষনা করেন।

উল্লেখ্য, ২০০৮ সনের ১৬ এপ্রিল গৌরনদী উপজেলার সুন্দরদী গ্রামের বাসিন্দা ও ইউনিলিভার বাংলাদেশ এর গৌরনদীর পরিবেশক টরকী বন্দরের বেল্লাল মাঝির বিক্রয় প্রতিনিধি সুমন দাস কালুকে হত্যা করে লাশ বস্তাবন্দি করে নদীতে ভাসিয়ে দেয়া হয়। ১৮ এপ্রিল বস্তাবন্দি অবস্থায় তার লাশ আগৈলঝাড়ার পয়সারহাট নদী থেকে পুলিশ উদ্ধার করে। এ ঘটনায় কালু দাসের বোন জামাতা অজিত কুমার দাস বাদি হয়ে মামলা দায়ের করেন। আগৈলঝাড়ায় থানা পুলিশ ওই বছরের ৩১ মে আদালতে চার্জশীট দাখিল করে। এরপূর্বে কালুকে হত্যা করার পূর্বে তার কাছ থেকে আসামিদের ছিনিয়ে নেয়া এক লাখ ৭০ হাজার টাকা প্রধান আসামির বসত ঘর থেকে উদ্ধার করে পুলিশ। মামলার ১৫জন সাক্ষীর মধ্যে ১২ জনের সাক্ষ্য প্রদান শেষে আদালত গতকাল বুধবার উল্লেখিত রায় ঘোষনা করেন।

আরও পড়ুন

Back to top button
Translate »