আর্কাইভ

বরিশালে স্বামীর পরকীয়ার বলি গৃহবধূ সুমি দে

নিজস্ব সংবাদদাতা ॥ বরিশালের মেহেন্দিগঞ্জ উপজেলার উলানিয়া ইউনিয়নের রাজপুর গ্রামে স্বামীর পরকীয়ার বলি হয়েছে সুমি দে (২১) নামের এক গৃহবধূ। ঘহটনাটি ঘটেছে শুক্রবার। পুলিশ নিহতের লাশ উদ্ধার করে ময়নাতদন্তের জন্য মর্গে প্রেরন করেছে। এ ঘটনায় থানায় মামলা দায়ের করা হলে পুলিশ ওইদিন সন্ধ্যায় পরকীয়া প্রেমিকাকে গ্রেফতার করেছে। নিহতের স্বামী অপু দে পলাতক রয়েছে।

পুলিশ ও নিহতের পারিবারিক সূত্রে জানা গেছে, গত এক বছর পূর্বে বরিশাল সদর উপজেলার চরমোনাই এলাকার সুশিল কুমার দেবনাথের কন্যা সুমিকে সামাজিক ভাবে বিয়ে দেয়া হয় পাশ্ববর্তী মেহেন্দিগঞ্জ উপজেলার উলানিয়া ইউনিয়নের রাজাপুর গ্রামের জীবন চন্দ্র দের পুত্র অপু দে’র সাথে। বিয়ের পর গৃহবধূ সুমি জানতে পারে তার স্বামী অপু দে বিয়ের পূর্ব থেকেই তার দূর সম্পর্কের বিধবা মামী চায়না রানী দের সাথে একত্রে বসবাস করে আসছে। এ নিয়ে তাদের দাম্পত্য কলহ দেখা দেয়। এরজের ধরে অপু ও তার পরকীয়া প্রেমিকা চায়না প্রায়ই সুমিকে শারিরিক নির্যাতন করে আসছিলো। বিষয়টি সুমি এবং তার পরিবারের লোকজনে স্থানীয় ইউপি চেয়ারম্যান নুরুল ইসলামকে অবহিত করলে তিনি (চেয়ারম্যান) বিষয়টি নিয়ে নানাতালবাহানা করে আসছিলো। গত বৃহস্পতিবার দুপুর থেকে গৃহবধূ সুমি রহস্যজনক ভাবে নিখোঁজ হয়। গতকাল শুক্রবার সকালে অপু দের ঘরের পার্শ্বের ডোবায় সুমির লাশ দেখে স্থানীয়রা পুলিশকে খবর দেয়। এ ঘটনায় নিহত সুমির মা রীনা দেবনাথ বাদি হয়ে গতকাল শুক্রবার সন্ধ্যায় মেহেন্দিগঞ্জ থানায় একটি হত্যা মামলা দায়ের করেন। পুলিশ তাৎক্ষনিক অভিযান চালিয়ে পরকীয়া প্রেমিকা চায়না রানী দে’কে গ্রেফতার করলেও নিহতের স্বামী অপু দে (২৫) পলাতক রয়েছে।

আরও পড়ুন

Back to top button
Translate »