আর্কাইভ

জনতার রোষানলে পালিয়ে গেছে ঠিকাদারের লোকজন

নিজস্ব সংবাদদাতা ॥ দক্ষিণাঞ্চলের সাথে সড়ক পথে যোগাযোগের একমাত্র মহাসড়কের ক্ষতি করে আরেকটি সড়কের জন্য অবৈধভাবে ঠিকাদারের লোকজনে মাটি কেটে নেয়ার সময় স্থানীয় জনতা তাদের বাঁধা প্রদান করেন। বাঁধা উপেক্ষা করে শুক্রবার এস্কেভেটার দিয়ে মাটি কাটার সময় স্থানীয় জনতার তীব্র প্রতিবাদের মুখে অবশেষে পালিয়ে যায় ঠিকাদারের লোকজনে। ঘটনাটি ঘটেছে শুক্রবার সকাল সাড়ে দশটার দিকে গৌরনদী উপজেলার মাহিলাড়া এলাকায়।

জানা গেছে, বরিশাল-ঢাকা মহাসড়কের পাশ্ববর্তী গৌরনদী উপজেলার মাহিলাড়া ইউনিয়নের বেজহার মোল্লাবাড়ি নামকস্থান থেকে মহাসড়কের ক্ষতি করে অবৈধভাবে গৌরনদী-আগৈলঝাড়া সড়কের জন্য গত তিনদিন পূর্বে মাটি কাটার কাজ শুরু করে বরিশালের ঠিকাদারী প্রতিষ্ঠান ওটিবিএল-এর লোকজনে। এতে প্রথমেই স্থানীয়রা ঠিকাদারের লোকজনদের মাটি কাটতে বাঁধা প্রদান করেন। এসময় তারা (ঠিকাদারের লোকজনে) স্থানীয় প্রভাবশালী এক রাজনৈতিক নেতার নির্দেশেই এ মাটি নেয়া হচ্ছে বলে জানান। দক্ষিণাঞ্চলের সাথে সড়ক পথে যোগাযোগের একমাত্র মহাসড়ক রক্ষায় স্থানীয়রা বাঁধা সৃষ্টি করলেও তাদের কোন বাঁধাই কাজে আসেননি। বাঁধার কারনে ঠিকাদারের লোকজন আরো ক্ষিপ্ত হয়ে শুক্রবার সকালে এস্কেভেটার দিয়ে মাটি কাটার কাজ শুরু করেন। এসময় স্থানীয় হাজার-হাজার জনতা তাদের মাটি কাটতে বাঁধা দিয়ে ঠিকাদারের লোকজনদের ধাওয়া করে। একপর্যায়ে জনতার রোষানল থেকে বাঁচার জন্য ঠিকাদারের লোকজনদের দ্রুত স্থান ত্যাগ করেন। ঘটনার সত্যতা স্বীকার করেছেন মাহিলাড়া ইউনিয়ন পরিষদের চেয়াম্যান সৈকত গুহ পিকলু।

জনতার রোষানলে পালিয়ে গেছে ঠিকাদারের লোকজন

আরও পড়ুন

মন্তব্য করুন

Back to top button
Translate »