আর্কাইভ

গৌরনদীর সেই শিক্ষককের বিরুদ্ধে বিভাগীয় মামলা

দেলোয়ার সেরনিয়াবাত ॥ ক্লাসে পড়া দিতে না পারায় বাথরুমে আটকে শাস্তি দেয়ার অপবাদ সইতে না পেরে বরিশালের গৌরনদী উপজেলার মেদাকুল সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়ের চতুর্থ শ্রেণীর ছাত্র নাঈম আত্মহত্যা করেছে। প্রাথমিক তদন্তে শিক্ষকের বিরুদ্ধে অভিযোগ প্রমানিত হওয়ায় অভিযুক্ত শিক্ষক রফিকুল ইসলাম লালনকে সাময়িক বরখাস্ত করে তার বিরুদ্ধে বিভাগীয় মামলা রুজু করা হয়েছে।

জেলা শিক্ষা অফিসার মোঃ শাহ আলম শুক্রবার দুপুরে সাংবাদিকদের এ তথ্য জানিয়েছেন। অপরদিকে অভিযুক্ত শিক্ষক লালনকে রক্ষা করার জন্য একটি প্রভাবশালী মহল মোটা অংকের টাকার মিশন নিয়ে মাঠে নেমেছে বলে অভিযোগ পাওয়া গেছে। ওই প্রভাবশালী মহলটি কতিপয় সংবাদ কর্মীসহ সংশ্লিষ্ট কর্মকর্তাদের ম্যানেজ করে সংবাদ সম্মেলনের চেষ্টা চালিয়ে যাচ্ছে।
 
উল্লেখ্য, মেদাকুল গ্রামের এস্কেন্দার আলী সরদারের ছোট পুত্র ও মেদাকুল সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়ের চতুর্থ শ্রেণীর ছাত্র নাঈম সরদার বাংলা ক্লাশে পড়া দিতে না পারায় শ্রেনী শিক্ষক রফিকুল ইসলাম লালন তাকে সহ তিন ছাত্রকে বাথরুমে আটকে রেখে শাস্তি দেয়। এ নিয়ে সহপাঠীরা তাদের নানা উপহাস করে। এ অপবাদ সইতে না পেরে নাঈম গলায় ফাঁস লাগিয়ে আত্মহত্যা করে।

আরও পড়ুন

Back to top button
Translate »