আর্কাইভ

সালমা ও তানিয়ার দায়িত্ব নিলেন সাবেক মন্ত্রী আবুল হোসেন

স্টাফ রিপোর্টার ॥  বরিশালের বানারীপাড়া উপজেলার হতদরিদ্র পরিবারের সন্তান এবারের এসএসসি পরীক্ষায় গোল্ডেন জিপিএ-৫ পাওয়া অদম্য মেধাবী সালমা ও তানিয়াকে নিয়ে গত ২৬ মে দৈনিক জনকণ্ঠে সংবাদ প্রকাশিত হয়। ওই সংবাদটি দৃষ্টি গোচর হয়েছে সাবেক যোগাযোগ মন্ত্রী সৈয়দ আবুল হোসেনের। অবশেষে তিনি ওই মেধাবী ছাত্রীদের উচ্চ শিক্ষার সকল দায়দায়িত্ব নিয়েছেন।

সৈয়দ আবুল হোসেনের প্রতিষ্ঠিত মাদারীপুরের কালকিনি উপজেলা ডাসার শেখ হাসিনা একাডেমী এ্যান্ড উইমেন্স বিশ্ববিদ্যালয় (আবাসিক) কলেজের অধ্যক্ষ জাকিয়া সুলতানা জানান, জনকণ্ঠে প্রকাশিত সংবাদের পর তাকে মন্ত্রী ফোন করে ওই দু’ছাত্রীর খোঁজ খবর নিয়ে তাদের উচ্চ শিক্ষা অর্জনের যাবতীয় ব্যয়ভার বহন করার আগ্রহ প্রকাশ করেন। তার কথা অনুযায়ী তিনি বানারীপাড়ায় গিয়ে ছাত্রী ও তাদের অভিভাবকদের সাথে কথা বলে মন্ত্রী আবুল হোসেন আগ্রহের কথা বলেন। এতে সালমা ও তানিয়া এবং তাদের পরিবারের সদস্যরা অপকটে রাজি হয়। সেমতে সালমা ও তানিয়া শেখ হাসিনা একাডেমী এ্যান্ড উইমেন্স বিশ্ববিদ্যালয় কলেজে ভর্তি হওয়ারও সম্মতি প্রকাশ করেন। সৈয়দ আবুল হোসেনের বরাত দিয়ে অধ্যক্ষ জাকিয়া সুলতানা আরো বলেন, প্রকাশিত সংবাদের জন্য মন্ত্রী জনকণ্ঠের সংশ্লিষ্ট সকলকে শুভেচ্ছা ও অভিনন্দন জানিয়েছেন।

উল্লেখ্য, বানারীপাড়া উপজেলার ধারালিয়া গ্রামের দিনমজুর মোঃ শাহজাহানের কন্যা সালমা খানম স্থানীয় সৈয়দ বজলুল হক মাধ্যমিক বিদ্যালয় থেকে এবারের এসএসসি পরীক্ষায় বিজ্ঞান বিভাগে গোল্ডেন জিপিএ-৫ ও বেতাল গ্রামের দরিদ্র রাজমিস্ত্রী জাহাঙ্গীর ফকিরের কন্যা তানিয়া খানম সলিয়াবাকপুর ফজলুল হক মাধ্যমিক বিদ্যালয় থেকে বিজ্ঞান বিভাগে জিপিএ-৫ পেয়েছে। ভালো ফলাফল করেও অর্থভাবে তাদের উচ্চ শিক্ষা অনেকটাই অনিশ্চিত হয়ে পরেছিলো।

আরও পড়ুন

Back to top button
Translate »