আর্কাইভ

বরিশালে ইয়াবা তপন আটক

বিশেষ প্রতিনিধিঃ বরিশাল নগরীর ইয়াবা ব্যবসায়ী হিসাবে পরিচিত তপন ওরফে ইয়াবা তপন(৩০) অবশেষে পুলিশের খাঁচায় বন্দী হয়েছে। বুধবার সন্ধ্যায় বরিশাল কোতোয়ালী মডেল থানা পুলিশ নগরীর হাসপাতাল রোডের সোনালী সিনেমা হল সংলগ্ন এলাকা থেকে গ্রেপ্তার করতে সক্ষম হয়। এর আগে বিএমপি’র পুলিশ কমিশনার তৌফিক উদ্দীন আহমেদ সাংবাদিকদের বলেছিলেন কোন মাদক ব্যবসায়ীকে ছাড় দেয়া হবে না, সে যে-ই হোক। তপনকেও ২৪ ঘন্টার মধ্যে আটক করার কথা বলেছিলেন পুলিশ কমিশনার। এরইধারাবাহিকতায় এই মাদক ব্যবসায়ীকে আটক করা হয়।

বাকেরগঞ্জের নলুয়ার বজলু মোল্লার বখাটে পুত্র তপন। রাজধানী ঢাকায় অপরাধ জগতের ছিনতাইকারী চক্রসহ ইয়াবা ব্যবসায়ের সঙ্গে জড়িয়ে পড়ে তপন। ইয়াবা ব্যবসায়ের বিস্তিৃতি ঘটাতে সে বছর দুয়েক আগে ঢাকা থেকে বরিশাল নগরীতে আসে। নগরীর হাসপাতাল রোডের ল’কলেজের অভ্যন্তরে আত্মীয় পরিচয়ে বাবু নামক এক ভদ্র পরিবারে বসবাস করে ইয়াবা ব্যবসা চালিয়ে আসছিল তপন। বিশেষ করে বিসিসি মেয়র শওকত হোসেন হিরনের আত্মীয় পরিচয়ে বিভিন্ন স্থানে ক্ষমতার দাপটও প্রর্দশন করে তপন। নানা দাপট প্রর্দশনে বিভিন্ন স্থানে মেয়রের সুনাম ক্ষুন্ন করে সে। তপনের পাশপাশি তার ছোট ভাই অপুও নানাবিধ অপকর্ম করে আসছে। এলাকার সাধারন নারী-পুরুষ তপন-অপু ও এদের সহযোগী ভাড়াটিয়া ছিছকে সন্ত্রাসীদের অত্যাচারে অতিষ্ঠ হয়ে পড়ে। নিরব ক্ষোভে ফেটে পড়ে স্থানীয়রা। এমনকি মাদক ব্যবসায়ী তপন গত ৩ আগষ্ট সংবাদ প্রকাশের জের ধরে আন্তর্জাতিক অন লাইন দৈনিক ও বার্তা সংস্থা টাইমস ইন্টারন্যাশনাল বেঙ্গলীর বিশেষ প্রতিনিধি সাংবাদিক আহমেদ জালালকে হত্যার চেষ্টায় হামলা করে। এ বিষয়ে ৫ আগষ্ট কোতোয়ালী মডেল থানায় একটি সাধারন ডায়রীও করা হয়। ডায়রী নং-২৮২।

সর্বশেষ দৈনিক বাংলার বনে পত্রিকার যুগ্ন বার্তা সম্পাদক ও বিডি প্রেস ডটনেটের বরিশাল ব্যুরো চীফ শাহীন হাসানকে মাদক সংক্রান্ত সংবাদ প্রকাশের জের ধরে হত্যার হুমকী দেয়। এজন্য তিনি জীবনের নিরাপত্তায় ১০ অক্টোবর কোতোয়ালী মডেল থানায় একটি সাধারন ডায়রী করে। যার ডায়রী নং-৫২১। ডায়রী করার জের ধরে তপন ও তার ভাই ছিছকে সন্ত্রাসী অপু ১১ অক্টোবর সন্ধ্যায় হাসপাতাল রোডের ল কলেজের সামনে থেকে ফিল্মী স্টাইলে সাংবাদিক শাহীন হাসানকে মটরসাইকেলে তুলে নেয়। সদর হাসপাতালের অভ্যন্তরে নিয়ে মারধরের চেষ্টা করলে কৌশলে দৌড়ে পালিয়ে রক্ষা পান শাহীন হাসান। এ ঘটনায় রাতেই পুলিশ কমিশনার তৌফিক উদ্দীন আহমেদ ও কোতোয়ালী মডেল থানার  ওসি শাহেদুজ্জামান শাহেদ’র পরামর্শে ফের তপন ও তার ভাই অপুর বিরুদ্ধে ডায়রী করেন শাহীন হাসান। ওদিকে বিএম কলেজ ছাত্রসংসদের ভিপি ছাত্রলীগ নেতা মঈন তুষার জানিয়েছেন তপন বখাটে, খারাপ প্রকৃতির। সে মেয়র ও আ’লীগের নাম ভাঙ্গিয়ে নগরীতে অন্যায় অপকর্ম করে চলছে। বিষয়টি তিনি মেয়রকে অবহিত করবেন বলে মন্তব্য করেন। এছাড়া তপনের আইনগতভাবে শাস্তি দাবী করেন ভিপি তুষার। একই কথা বলেছেন মহানগর ছাত্রলীগের সভাপতি জসিম উদ্দীন।

এদিকে তপনকে আটকের পর বিশেষ একটি মহল তাকে ছাড়িয়ে নিতে জোর তদবির করছে। একটি সূত্র বলছে, পুলিশ মুছলেকা রেখে তপনকে ছেড়ে দিতে পারে। যদিও শান্তি প্রিয় এলাকাবাসী বলছে তপন উশৃঙ্খল,সন্ত্রাস প্রকৃতির। সুতারাং তাকে আটক করে ছেড়ে দেয়া উচিৎ হবে না।

আরও পড়ুন

Back to top button
Translate »