আর্কাইভ

জমি দখলে ব্যর্থ হয়ে কালী মন্দিরে আগুন দিয়ে সন্ত্রাসীদের উল্লাস

উজিরপুর সংবাদদাতাঃ উজিরপুর উপজেলার হারতা নাথারকান্দি গ্রামের সংখ্যালঘু একটি পরিবারের জমি দখলে ব্যর্থ হয়ে সন্ত্রাসীরা কালি মন্দিরে আগুন দেওয়ার অভিযোগ পাওয়া গেছে। ঘটনাটি ঘটেছে গত শুক্রবার গভীর রাতে।  স্থানীয়  সূত্রে জানা যায় বিজেন্দ্রনাথ রায় ও তার পরিবার তার পৈত্রিক সম্পত্তি পূর্ব পুরুষ থেকে ভোগ দখল করে আসছে। একটি কুচক্রি মহল গায়ের জোরে এই অসহায় সংখ্যালঘু পরিবারটির জায়গা দখললের দীর্ঘ দিন ধরে চেষ্টা চালিয়ে আসাছে।

গত ২৩ শে ডিসেম্বর গভীর রাতে স্থানীয় ভুমি দস্যূ আনোয়ার গোমস্তার নেতৃত্বে ২০/২৫ জন সন্ত্রাসীরা  মিলে ধারালো অস্ত্র নিয়ে বিজেন্দ্র নাথ রায়ের বাড়িতে হামলা চালিয়ে ব্যাপক ক্ষয়ক্ষতি করে। পরিবারের সকলকে হাত পা বেধে বিজেন্দ্র নাথ রায়ের দুই পুত্র বধুকে বিবস্ত্র করে ধর্ষনের চেষ্টা চালায়। নিরুপায় হয়ে স্বামী বিপুল রায় ও বিরেন রায় স্ত্রীর ইজ্জত বাঁচাতে ডাকচিৎকার দিলে সন্ত্রাসীরা এলোপাতারিভাবে পিটিয়ে গুরুতর জখম করে এবং বাড়ির উপরে কালি মন্দিরে আগুন ধরিয়ে দেয়। ডাকচিৎকার শুনে স্থানীয় মহিলা মেম্বর কিরনি রায় লোকজন নিয়ে  ছুটে আসলে সন্ত্রাসীরা দৌড়ে পালিয়ে যায়। ঘটনাস্থলে এসে বিবস্ত্র অবস্থায় থাকা সকলের বাধন খুলে দেয়। উক্ত সন্ত্রাসীদের বিরুদ্ধে নাথারকান্দি গ্রামবাসী একটি বিক্ষোভ মিছিল করে হারতা বন্দর প্রদক্ষিন করে। পরে নাথারকান্দি প্রাথকিম বিদ্যালয়ের সামনে সমাবেশ করে। এলাকার ধর্ম প্রান হিন্দু মুসলিম সবাই একত্রিত হয়ে এই অপরাধীদের বিচারের দাবী জানায় এবং ধর্মের উপর হামলাকারী দুবৃত্তদের গ্রেফতারের জন্য প্রশাসনের হস্তক্ষেপ কামনা করছে সংখ্যালঘুরা। বর্তমানে এই পরিবারটি সন্ত্রাসীদের হুমকির মুখে রয়েছে বলে জানা যায়। উজিরপুর থানা পুলিশ ঘটনাস্থল পরিদর্শন করেছে। এব্যাপারে মামলার প্রস্তুতি চলছে। উজিরপুর থানার অফিসার ইনচার্জ সুকুমার রায় জানিয়েছেন তদন্ত পূর্বক মামলা রুজু করা হবে।

আরও পড়ুন

মন্তব্য করুন

আরও দেখুন...
Close
Back to top button
Translate »