আর্কাইভ

আগৈলঝাড়া উপজেলার বেলুহার গ্রামে যৌতুকের দাবিতে গৃহবধূকে অমানুষিক নির্যাতন

নিজস্ব সংবাদদাতা ॥ ৫০ হাজার টাকা যৌতুকের দাবিতে আগৈলঝাড়া উপজেলার বেলুহার গ্রামের এক গৃহবধূকে অমানুষিক নির্যাতন করা হয়েছে। বর্তমানে ওই গৃহবধূ গৌরনদী হাসপাতালের বেডে শষ্যাশয়ী রয়েছেন। এ ঘটনায় গতকাল রবিবার দুপুরে থানায় অভিযোগ দেয়া হয়েছে।

গৌরনদী উপজেলার জয়শুরকাঠী গ্রামের হান্নান সরদারের কন্যা হাসপাতালের বেডে শষ্যাশয়ী নির্যাতিতা গৃহবধূ সালমা বেগম জানান, গত আড়াই বছর পূর্বে পাশ্ববর্তী আগৈলঝাড়া উপজেলার বেলুহার গ্রামের উমর আলী সরদারের পুত্র হান্নান সরদারের সাথে তার সামাজিক ভাবে বিয়ে হয়। বিয়ের পর বিভিন্ন অজুহাতে হান্নান ও তার পরিবারের লোকজন সালমা ও তার পরিবারের কাছে যৌতুক দাবি করে আসছিলো। ইতোমধ্যে তাদের চাপের মুখে যৌতুকের ৫০ হাজার টাকা পরিশোধ করা হয়। পূর্ণরায় ৫০ হাজার টাকা যৌতুকের জন্য গৃহবধূ সালমাকে স্বামী হান্নান ও তার পরিবারের লোকজন চাপপ্রয়োগ করে আসছিলো। এতে সালমা বেগম অপরাগতা প্রকাশ করায় প্রায়ই তাকে শারিরিক নির্যাতন করা হতো। সর্বশেষ শনিবার রাতে যৌতুকের দাবিতে স্বামী হান্নান সরদার, শশুড় উমার আলী সরদার ও জোৎসনা বেগম হত্যার উদ্দেশ্যে গৃহবধূ সালমাকে অমানুষিক নির্যাতন শুরু করে। এসময় সালমার ডাকচিৎকারে বাড়ির লোকজন এগিয়ে এসে মুর্মুর্ষ অবস্থায় তাকে উদ্ধার করে গৌরনদী হাসপাতালে ভর্তি করেন।

আরও পড়ুন

Back to top button
Translate »