গৌরনদী সংবাদ

টরকীর ক‌থিত সাংবাদিক নামধারী ডাক্তার ম‌নো‌তোষকে গণ‌ধোলাই

‌মেয়া‌দোত্তৃর্ন স্যালাইন বিক্রি করায় কথিত ডা. ম‌নো‌তোষ সরকার‌কে গনধোলাই দি‌য়ে‌ দোকান বন্ধ ক‌রে দেয় রোগীর স্বজনরা। ঘটনা‌টি ১৫ জুলাই বুধবার বরিশালের গৌরনদী উপজেলার টরকী বন্দর ন্যাশনাল ব্যাংকের নিচে।

‌রোগীর স্বজন জা‌কির খান জানান, গৌরনদী পৌরসভার ২ নং ওয়ার্ড কাউন্সিলর কে এম আহসান ইমাম খায়রুল খানের বোনের শাশুড়ি টরকী বন্দরের ব্যবসায়ী মন্টু সরদা‌রের স্ত্রী প্রেশার ও শারীরিক দুর্বলতার জন্য টরকী বন্দর ন্যাশনাল ব্যাংকের নিচে সরকার মেডিকেল হলের ফার্মাসিস্ট ও ডাক্তার ম‌নো‌তোষ সরকারের শরণাপন্ন হলে তা‌কে স্যালাইন দেয়া হয়। স্যালাইন‌টি পুষ করার জন্য আরেক ডাক্তার বিপুলের কাছে গেলে তিনি দেখ‌তে পান স্যালাইনের ডেটের স্থানে ঘষামাজা করা। ভালভাবে দেখে তিনি রেজগী‌কে জানান ডেট নেই। ২০১২ সা‌লের ডেট দেয়া তার উপ‌রে ঘষামাজা ক‌রে নূতন ডেট লেখা। স্যালাইন নি‌য়ে ম‌নো‌তোষ এর কাছে গেলে তিনি কোন সদুত্তর দি‌তে পারেননি। এতে ক্ষিপ্ত হয়ে উক্ত গণ‌ধোলাই দেয়া শুরু ক‌রে রোগীর স্বজনেরা। এরপরে দোকান বন্ধ ক‌রে দেন তারা। প‌রে বনিক সমিতির সাধারণ সম্পাদক রাজু আহ‌ম্মেদ হারুন হাওলাদার বিষয়‌টি ঈ‌দের প‌রে মীমাংসা ক‌রে দিবেন এই আশ্বাস দি‌য়ে দোকান খুলে দেন।

উল্লেখ্য, সম্প্রতি এই হাতু‌রে ডাক্তারের হা‌তে টরকী বন্দর গার্লস স্কুলের শিক্ষিকা পূর্ণিমা হালদারের ডেলিভারি করা‌তে গি‌য়ে তার নবজাতক‌কে মে‌রে ফেলেন। বিভিন্ন প্রিন্ট ও অনলাইন পত্রিকায় রি‌পোর্ট হ‌লে টনক ন‌ড়ে উপর মহলের, পালিয়ে বেড়ায় ভুয়া ডাক্তার ম‌নো‌তো‌ষ সরকার। নবজাতকের বাবা রতন হালদার বাঁদি হ‌য়ে বরিশাল আদালতে কথিত ওই ডাক্তারসহ তিনজন‌কে আসামী ক‌রে মামলা দা‌য়ের করেন। পরবর্তী‌তে স্থানীয়‌দের মিট মীমাংসায় মোটা অংকের টাকা জরিমানা দি‌য়ে মামলা থেকে অব্যহ‌তি পান। এরপরে ম‌নো‌তোষ সাংবাদিক হওয়ার ম‌নোবাসনায় অর্থের বিনিময়ে টরকীর আর এক সিনিয়র সাংবাদিকের মাধ্যমে বরিশাল থেকে প্রকাশিত বরিশালের কাগজ নামে এক‌টি পত্রিকার নাম‌ে মাত্র প্রতিনিধি হন। এখন মনতোষ এলাকায় ভুয়া ডাক্তারের সাথে ভুয়া সাংবাদিক উপাধির ক্ষ‌েতাপ পেয়েছেন।

আরও সংবাদ...

Leave a Reply

Back to top button