গৌরনদী সংবাদ

ঝুঁকিতে টরকীচর সেতু

বরিশালের গৌরনদী উপজেলার পালরদী নদী থেকে অবৈধ ভাবে বালু উত্তোলণের মহোৎসব। এতে হুমকির মুখে পড়েছে টরকী বন্দরের টরকীচর বড় সেতুটি।

এ ছাড়া টরকী বন্দরের পাশ্ববর্তি এলাকা থেকে বালু উত্তোলণের কারণে নদীর পাড়ের সড়ক ভেঙ্গে নদীতে বিলীন হলেও প্রশাসন থেকে কোন প্রকার ব্যবস্থা নেয়া হচ্ছে না। বালু উত্তোলণকারীরা সরকারি দলের নেতাকর্মী হওয়ায় এলাকাবাসী মুখ খুলতে সাহস পাচ্ছে না।

শুক্রবার সকালে সরেজমিনে গিয়ে দেখা গেছে, উপজেলার পালরদী নদীর ওপর নির্মিত টরকী বন্দরের টরকীচর বড় সেতুর পাশে নদীর ভেতর বোড়িং করে নিচ থেকে ১০ থেকে ১৫ দিন যাবত দেদারসে বালু উত্তোলণ করা হচ্ছে।

এতে আশপাশে নদীর পাড় ভাঙ্গন শুরু হয়েছে। টরকী বন্দরের জনগুরুত্বপূর্ন বড় সেতুটি হুমকির মুখে পড়েছে। এ ছাড়া একই নদীর গৌরনদী থানা সংলগ্ন লঞ্চ ঘাটের বিপরীত পাড় থেকে কয়েকদিন যাবত ছোট ড্রেজার বসিয়ে বালু তোলা হচ্ছে।

নাম প্রকাশে অনিচ্ছুক গৌরনদী ও টরকী বন্দরের কয়েকজন ব্যবসায়ী অভিযোগ করে বলেন, বালু উত্তোলণের বিষয়টি উপজেলা প্রশাসনকে জানানো সত্ত্বেও রহস্যজনক কারণে প্রশাসন নিরব ভূমিকা পালন করছেন।

এ ব্যাপারে গৌরনদী উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা মোঃ মাসুদ হাসান পাটোয়ারী বলেন, বিষয়টি জানতে পেরে বৃহস্পতিবার তহশিলদারকে পাঠিয়ে বালু উত্তোলণ বন্ধ করেছি।

আরও সংবাদ...

Back to top button