বরিশাল

আগৈলঝাড়ায় বিএনপি ও জামায়াতের গ্রেফতার ১০

২০ দলের সারা দেশে ডাকা চলমান হরতাল অবরোধে বরিশালের আগৈলঝাড়া উপজেলায় সাম্প্রতিক সময়ে পেট্রোল দিয়ে বিআরটিসি বাস পোড়ানো ও পেট্রোল বোমায় পিকআপভ্যান পোড়ানোর ঘটনায় পুলিশ বাদী হয়ে পৃথক দুটি মামলা করেছে।

দুটি মামলায় স্থানীয় বিএনপি ও জামায়াতের ৫৪ জনের নাম উল্লেখ করে শতাধিক নেতা-কর্মীকে আসামি করা হয়েছে।

সূত্রমতে, ১৩ জানুয়ারী রাতে পুলিশী ডিউটি চলাকালে সদর ডিগ্রী কলেজের সামনে পার্কিং করা একটি বিআরটিসি বাসে পেট্রোল দিয়ে আগুনে পুড়িয়ে দেয়া হয়। এ ঘটনায় বিশেষ ক্ষমতা আইনে এসআই মনোরঞ্জন মিস্ত্রী বাদী হয়ে ২৮জন নেতা কর্মীর নাম উল্লেখ করে অজ্ঞাতনামা আরও ৩০-৩৫ জনকে আসামী করে মামলা করেন।

৮ ফেব্রুয়ারী রাতে অপর ঘটনায় ওসির নেতৃত্বে পুলিশি টহলের মধ্যেই রাত দেড়টার দিকে শহরের বাইপাস রোডের জাহান্দার বেকারীর পশ্চিম পার্শ্বে ফলবাহী একটি মিনি ট্রাকে পেট্রোল বোমা মেরে পুড়িয়ে দেয়া হয়। এ ঘটনায় এসআই অসীম কুমার সিকদার বাদী হয়ে ২৬ জনের নাম উল্লেখসহ অজ্ঞাতনামা আরও ৩০/৩৫ জনকে আসামী করে মামলা দায়ের করেন। ওই মামলায় যুবদল কর্মী নগরবাড়ি গ্রামের আকিউল হাওলাদারকে গ্রেফতার করে পুলিশ।

পুলিশের দাবি, বিআরটিসি বাস পোড়ানো মামলায় ঘটনার সাথে সম্পৃক্তদের তারা শনাক্ত করেছে। সন্দেহভাজন হিসেবে পুলিশ চাঁদত্রিশিরা গ্রামের যুবদল কর্মী শাহীন বকতিয়ার, গৈলা গ্রামের ইটালী প্রবাসী বিএনপি নেতা আজাদ মোল্লা, বাকাল গ্রামের কবির ফকির, যবসেন গ্রামের শিবির কর্মী আবুল কালাম আজাদ, বেলুহার গ্রামের আলী হোসেন ভূইয়া স্বপন, সুজনকাঠী গ্রামের সাহাদাৎ বেপারী, অমিও কর, রাজিহার গ্রামের শাহীন ফকির, ও রাংতা গ্রামের জামায়াত নেতা সরোয়ার জামিলকে গ্রেফতার করে।


ফেসবুকে মন্তব্য করুন :

টি মন্তব্য
মন্তব্যে প্রকাশিত যেকোন কথা মন্তব্যকারীর একান্তই নিজস্ব। Gournadi.com-এর সম্পাদকীয় অবস্থানের সঙ্গে এসব অভিমতের কোন মিল নেই। মন্তব্যকারীর বক্তব্যের বিষয়বস্তু বা এর যথার্থতা নিয়ে Gournadi.com কর্তৃপক্ষ আইনগত বা অন্য কোনো ধরনের কোনো দায় নিবে না

আরো পোষ্ট...

Leave a Reply